রুট-মালানের ব্যাটে লড়ছে ইংল্যান্ড

অ্যাশেজের প্রথম টেস্টেই ইনিংস হারের দশা হয়েছে ইংল্যান্ডের। প্রথম ইনিংসেই বিশাল ব্যবধানে পিছিয়ে পড়ে দলটি। তবে দ্বিতীয় ইনিংসে দলকে আশা দেখাচ্ছেন অধিনায়ক জো রুট। তাকে দারুণ সঙ্গ দিচ্ছেন ডেভিড মালান। তাতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রতিরোধ গড়ছেন এ দুই ব্যাটার।

অ্যাশেজের প্রথম টেস্টেই ইনিংস হারের দশা হয়েছে ইংল্যান্ডের। প্রথম ইনিংসেই বিশাল ব্যবধানে পিছিয়ে পড়ে দলটি। তবে দ্বিতীয় ইনিংসে দলকে আশা দেখাচ্ছেন অধিনায়ক জো রুট। তাকে দারুণ সঙ্গ দিচ্ছেন ডেভিড মালান। তাতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রতিরোধ গড়ছেন এ দুই ব্যাটার।

ব্রিসবেন টেস্টের তৃতীয় দিন শেষে এখনও ৫৮ রানে পিছিয়ে আছে ইংল্যান্ড। এদিন ২ উইকেটে ২২০ রান করে দিন শেষ করেছে সফরকারীরা। এর আগে অস্ট্রেলিয়াকে ৪২৫ রানে অলআউট করে দলটি। প্রথম ইনিংসে ১৪৭ রানে গুটিয়ে গিয়েছিল তারা। 

প্রথম ইনিংসে ২৭৮ রানে পিছিয়ে থাকা ইংল্যান্ডের দ্বিতীয় ইনিংসের শুরুটাও ভালো ছিল না। দলীয় ২৩ রানেই ওপেনার রোরি বার্নসকে হারায় তারা। এরপর দলীয় ৬১ রানে আরেক ওপেনার হাসিব হামিদকেও হারায় দলটি। দুই ওপেনারই ক্যাচ তুলে দেন উইকেটরক্ষক আলেক্স ক্যারির হাতে। তাতে শঙ্কা জাগে ইনিংস হারের।

তবে তৃতীয় উইকেটে মালানের সঙ্গে ইনিংস মেরামতের কাজে নামেন অধিনায়ক রুট। প্রাথমিক চাপ সামলে নিয়ে গড়েছেন ১৫৯ রানের অবিচ্ছিন্ন এক জুটি। তাতে অস্ট্রেলিয়াকে দ্বিতীয়বার ব্যাটিংয়ে নামানোর পাশাপাশি ভালো লিড নেওয়ার স্বপ্ন জোরালো হচ্ছে তাদের।

দুই অপরাজিত ব্যাটারই এগিয়ে যাচ্ছেন সেঞ্চুরির দিকে। অধিনায়ক রুট ব্যাট করছেন ৮৬ রানে। ১৫৮ বলের ইনিংসে ১০টি চার মেরে এ ইনিংস সাজান অধিনায়ক। মালান খেলছেন আরও দেখে শুনে। ৮০ রান তুলতে খেলেছেন ১৭৭ বল। তবে রুটের সমান ১০টি চার মেরেছেন তিনিও।

অজিদের পক্ষে ১টি করে উইকেট নিয়েছেন মিচেল স্টার্ক ও অধিনায়ক প্যাট কামিন্স।

এর আগে আগের দিনের ৭ উইকেটে ৩৪৩ রান নিয়ে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। শেষ ৩ উইকেট হারিয়ে যোগ করে আরও ৮২ রান। ১১২ রানে অপরাজিত থাকা ট্রাভিস হেড মার্ক উডের বলে শেষ ব্যাটার হিসেবে বোল্ড হওয়ার আগে খেলেন ১৫২ রানের ইনিংস। ওয়ানডে স্টাইলে ব্যাটিং করে ১৪৮ বলে ১৪তি চার ও ৪টি ছক্কায় এ রান করেন তিনি।

শেষ দিকে হেডকে দারুণ সঙ্গ দেন লেজের ব্যাটার স্টার্ক। সপ্তম উইকেটে ৮৫ রান যোগ করেন এ দুই ব্যাটার। ৩৫ রানের কার্যকরী এক ইনিংস খেলেন স্টার্ক।

ইংল্যান্ডের পক্ষে ৩টি করে উইকেট নিয়েছেন ওলে রবিনসন ও মার্ক উড। ২টি শিকার ক্রিস ওকসের। ১টি করে উইকেট পেয়েছেন জ্যাক লিচ ও রুট।

Comments

The Daily Star  | English