নদীর জায়গা নদীর কাছে ফিরিয়ে দেবো: নৌ প্রতিমন্ত্রী

নদীর দখল ও দূষণকে চিহ্নিত করে নদীর জায়গা নদীর কাছে ফিরিয়ে দেবো বলে মন্তব্য করেছেন নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।
বরিশালে বিআইডব্লিউটিএর ড্রেজার বেজ উদ্বোধন করেন নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহামুদ চৌধুরী। ছবি: টিটু দাস/স্টার

নদীর দখল ও দূষণকে চিহ্নিত করে নদীর জায়গা নদীর কাছে ফিরিয়ে দেবো বলে মন্তব্য করেছেন নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

আজ সোমবার বরিশালে নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) ড্রেজার বেজ উদ্বোধন উপলক্ষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, 'নদীর নাব‍্যতা ফিরিয়ে আনা, অবৈধ দখল ও দূষণের বিরুদ্ধে কাজ করছি। নদীমাতৃক বাংলাদেশকে ধরে রাখতে চাই। নদীর প্রবাহ ঠিক রাখতে ড্রেজার বেজ স্থাপন করা হচ্ছে। প্রাচ‍্যের ভেনিস খ‍্যাত বরিশাল এখন সে জায়গায় নাই। এখানকার নদীনালা খালগুলো পুনরুদ্ধার করতে হবে।'

তিনি বলেন, 'এক সময়ে বরিশালকে বলা হতো ভেনিস। কিন্তু এখন ভেনিস বলতে লজ্জা লাগে। দখল ও দূষণে নদী-খালের নাব্যতা ফিরিয়ে আনতে এই ড্রেজার ইউনিট কাজ করবে।'

বরিশালে অত্যাধুনিক নদী বন্দর স্থাপন করা হবে উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, 'দক্ষিণাঞ্চলের অন্যান্য বন্দরগুলোর আধুনিকায়ন করা হবে। প্রশিক্ষিত জনবল ও নিরাপদ নৌযানের মাধ্যমে নৌ-ঝুঁকি ধীরে ধীরে শূন্যের কোটায় নিয়ে আসব। নদীর দখল ও দূষণ নিয়ে দেশের ১৭ কোটি মানুষ এখন কথা বলে, এটাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের সফলতা। আমরা মানুষকে দখল ও দূষণ সম্পর্কে সচেতনতা করতে পেরেছি। নদীর দখল ও দূষণকে চিহ্নিত করে নদীর জায়গা নদীর কাছে ফিরিয়ে দেবো।'

প্রতিমন্ত্রী বলেন, 'জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশ স্বাধীনের পর নৌপথ খননের জন্য ৭টি ড্রেজার এনেছিলেন। এরপর দীর্ঘ সময় সরকারি ড্রেজার আসেনি। নৌপথ খননের লক্ষ্যে আওয়ামী লীগ সরকার ৪০টি ড্রেজার সংগ্রহ করেছে, আরও ৩৫টি ড্রেজার সংগ্রহের কার্যক্রম চলমান রয়েছে। দুটি উদ্ধারকারী জাহাজ সংগ্রহ করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধুকে হত‍্যার পর ২১ বছর দেশের কোনো উন্নয়ন হয়নি।গত ৪০ বছরে দেশে যে উন্নয়ন হয়েছে, তার চেয়ে অনেকগুণ বেশি হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ১৩ বছরের শাসন আমলে। বঙ্গবন্ধুর রক্তের যোগ্য উত্তরসূরি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের মানুষের উন্নয়নে কাজ করছেন। বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের রোল মডেল।'

নৌপথে দুর্ঘটনা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, 'দুর্ঘটনা হবেই। টাইটানিকও ডুবে গেছে। এ নিয়ে মামলা হচ্ছে তদন্ত হচ্ছে। আমরা যেটি চাচ্ছি সেটি প্রশিক্ষিত জনবল ও ডিজাইন যেন নিরাপদ হয়। আমরা এটি শূন্যে নিয়ে আসার চেষ্টা করছি।'

বিআইডব্লিউটিএর চেয়ারম্যান গোলাম সাদেকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বরিশাল সিটি করপোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ, সাবেক সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস, অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মো. ওয়াহিদুর রহমান, অতিরিক্ত ডিআইজি মো. এনামুল হক, পুলিশ সুপার মো. মারুফ হোসেন ও স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক মো. শহীদুল ইসলাম।

উল্লেখ্য, দ্রুত ও স্বল্প সময়ে বিআইডব্লিউটিএর ড্রেজারগুলো মেরামত, সংরক্ষণ ও অপারেশনে সহায়তার লক্ষ্যে সরকার দেশে পাঁচটি 'ড্রেজার বেজ' স্থাপন করছে। আজ বরিশালে ড্রেজার বেজ উদ্বোধন করা হয়। ২০১৮ সালের নভেম্বরে বরিশাল ড্রেজার বেজের নির্মাণকাজ শুরু হয়। এ বেজটি নির্মাণে ব্যয় হয়েছে প্রায় ২৪ কোটি টাকা।

Comments