শাহবাগে পুলিশের সাথে ৭ কলেজের শিক্ষার্থীদের সংঘর্ষ

​ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সাথে সম্প্রতি অধিভুক্ত হওয়া বেশ কয়েকটি সরকারি কলেজের আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সাথে শাহবাগে পুলিশের সংঘর্ষ হয়েছে। পরীক্ষার তারিখ ঘোষণার দাবিতে শিক্ষার্থীরা সেখানে বিক্ষোভ করছিলেন।
পরীক্ষার সূচি ঘোষণার দাবিতে ঢাবির সাথে অধিভুক্ত সাতটি কলেজের শিক্ষার্থীদের সাথে পুলিশের সংঘর্ষের পর আন্দোলনকারী কয়েকজনকে আটক করে পুলিশ। ছবি: প্রবীর দাশ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সাথে সম্প্রতি অধিভুক্ত হওয়া বেশ কয়েকটি সরকারি কলেজের আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সাথে শাহবাগে পুলিশের সংঘর্ষ হয়েছে। পরীক্ষার তারিখ ঘোষণার দাবিতে শিক্ষার্থীরা সেখানে বিক্ষোভ করছিলেন।

ঘটনাস্থলে থাকা দ্য ডেইলি স্টারের ঢাবি প্রতিনিধি জানান, সংঘর্ষে অন্তত চার জন শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন। সেখান থেকে পুলিশে বেশ কয়েকজনকে আটকও করেছে।

সংঘর্ষের ফলে শাহবাগ থেকে সায়েন্স ল্যাবরেটরি পর্যন্ত রাস্তার যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

আজ সকাল ১০টার দিকে শাহবাগের জাতীয় জাদুঘরের সামনের রাস্তায় অবস্থান নেন সাতটি সরকারি কলেজের শিক্ষার্থী। কলেজগুলো হলো ঢাকা কলেজ, ইডেন মহিলা কলেজ, বেগম বদরুন্নেসা কলেজ, কবি নজরুল ইসলাম কলেজ, সরকারি তিতুমীর কলেজ, শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ ও মিরপুর বাঙলা কলেজ।

রমনা থানার এডিসি এইচএম আজিমুল হক বলেন, “শাহবাগ গুরুত্বপূর্ণ মোড় হওয়ায় যাত্রীদের কষ্টের কথা বিবেচনায় আমরা শিক্ষার্থীদের অন্য জায়গায় বিক্ষোভ দেখাতে বলেছিলাম। কিন্তু তারা অনুরোধ না শুনে আমাদের দিকে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। তাই আমরা তাদের ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টা চালাই।”

শিক্ষার্থীদের দাবিনামা

সংঘর্ষের পর বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা এলিফ্যান্ট রোডের বাটা সিগন্যালে অবস্থান নেন। বিক্ষোভকারীদের সাথে ঢাক মেট্রোপলিটন পুলিশের একটি দলও সেখানে অবস্থান নেয়।

নিউমার্কেট থানার পুলিশ কর্মকর্তা সাজ্জাদ ইবনে রায়হান বলেন, শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলে তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছেন।

লাঠি ও কাঁদানে গ্যাস দিয়ে পুলিশ বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করার আগে সকালে শিক্ষার্থীরা জাতীয় জাদুঘরের সামনে মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন।

কবি নজরুল সরকারি কলেজের আন্দলোনকারী শিক্ষার্থী জামাল উদ্দিন আহমেদ দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, “আমাদের পড়ালেখার জন্য পরিবার নিয়মিত টাকা  দিতে পারে না। সেশন জটের কারণে সময় মত আমাদের পরীক্ষা হচ্ছে না। এতে আমাদের ভবিষ্যৎ অন্ধকার। পরীক্ষার সূচি ঘোষণার দাবিতে আমরা শান্তিপূর্ণভাবে বিক্ষোভ করছিলাম কিন্তু পুলিশ আমাদের কর্মসূচি পালন করতে দিচ্ছে না।”

Click here to read the English version of this news

Comments

The Daily Star  | English
Flooding in Sylhet region | More rains threaten to worsen situation

More rains threaten to worsen situation

More than one million marooned; BMD predict more heavy rainfall in 72 hours; water slightly recedes in main rivers

6h ago