নিউইয়র্ক টাইমস স্কয়ারে ১৪৩১ বর্ষবরণের ঘোষণা

আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পর প্রথম মহড়া পরিচালনা করেন মহিতোষ তালুকদার তাপস।
নিউইয়র্ক টাইমস স্কয়ার
ছবি: সংগৃহীত

নিউইয়র্ক টাইমস স্কয়ারে ১৪৩১ বাংলা বর্ষবরণের ঘোষণা দিয়েছে এনআরবি ওয়ার্ল্ড ওয়াইড। টাইমস স্কয়ার এবং জ্যাকসন হাইটসের ডাইভারসিটি প্লাজাতে ১৩ ও ১৪ এপ্রিল শতাধিক কন্ঠে বরণ করে নেওয়া হবে বাংলা নতুন বছরকে।

জ্যাকসন হাইটসের এক রেস্টুরেন্টে সাহিত্য-সংস্কৃতিমনা শত মানুষের উপস্থিতিতে ২৪ জানুয়ারি বুধবার সন্ধ্যায় এ ঘোষণা দেওয়া হয়। আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পর প্রথম মহড়া পরিচালনা করেন মহিতোষ তালুকদার তাপস।

এনআরবি ওয়ার্ল্ড ওয়াইডের সভাপতি বিশ্বজিত সাহার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল লিটন।

বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ‍্যাপক হোসাইন কবির, অভিনেত্রী লুৎফুন নাহার লতা, শত কণ্ঠের মহড়া পরিচালক মহিতোষ তালুকদার তাপস, প্রজন্ম '৭১ যুক্তরাষ্ট্রের সভাপতি শিবলী ছাদেক এবং আয়োজক সংগঠনের সহ-সাধারণ সম্পাদক তানভীর কায়সার।

অনুষ্ঠানে বর্ষবরণ ঘোষণা করার সময় সাপ্তাহিক ঠিকানা পত্রিকার প্রধান সম্পাদক মুহম্মদ ফজলুর রহমান বলেন, 'নিউইয়র্কের টাইম স্কয়ার এবং জ্যাকসন হাইটসের ডাইভারসিটি প্লাজাতে ১৩ ও ১৪ এপ্রিল শতাধিক কণ্ঠে বরণ করে নেওয়া হবে ১৪৩১ বঙ্গাব্দকে। মঙ্গল শোভাযাত্রা, চিরায়ত বাংলার সংস্কৃতি পরিবেশনা এবং বৈশাখী মেলায় উপস্থিত থাকবেন দুই বাংলার জনপ্রিয় শিল্পীরা।'

১৪৩০ বঙ্গাব্দ বরণের শত কণ্ঠের নেতৃত্ব দিয়েছিলেন মহীতোষ তালকদার তাপস। এবারও হবে তার পরিচালনায়।

মহড়া শুরুর প্রাক্কালে তিনি বলেন,  'নিউইয়র্ক টাইম স্কয়ারের পাদদেশে ১৪৩০ বাংলা বর্ষবরণের অনুষ্ঠানটি আমাকে বিশ্ব বাঙালির কাছে পরিচিত করিয়ে দিয়েছে। এজন্য আয়োজক সংগঠন এনআরবি ওয়ার্ল্ড ওয়াইডের প্রতি অশেষ কৃতজ্ঞতা। প্রথম মহড়ায় প্রত্যেকের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে মনে হচ্ছে, আমরা গত বছরকেও ছাড়িয়ে যাব।'

অভিনেত্রী লুৎফুন নাহার লতা বলেন, 'বাংলাদেশ থেকে হাজার মাইল দূরে থেকেও অভিবাসীরা হৃদয়ে ধারণ ও লালনপালন করেন বাংলা সংস্কৃতি এবং বাংলাদেশ। নিউইয়র্কে প্রচণ্ড ঠান্ডা ও বৃষ্টি উপেক্ষা করে শত শিল্পীর উপস্থিতি প্রমাণ করে, এখানে যারা এসেছেন তারা প্রত্যেকে প্রকৃত সংস্কৃতিকর্মী। তাদের হাত ধরেই বাংলা সংস্কৃতি ছড়িয়ে পড়বে বিশ্বব্যাপী।' 

এনআরবি ওয়ার্ল্ড ওয়াইডের সভাপতি বিশ্বজিত সাহা বলেন, 'এবার তিন স্তরবিশিষ্ট অংশগ্রহণকারী নিশ্চিত করার পরিকল্পনা করছি আমরা। গতবারের  অংশগ্রহণকারীদের সঙ্গে যুক্ত হবে পরিবারের শিশু এবং কিশোর-কিশোরীরা। নিজেদের পরিবারে বাংলা ভাষা ও সংস্কৃতি চর্চার বিকল্প নেই। এবার টাইম স্কয়ারকে সাজানো হবে রমনার বটমূলের আদলে।'

এনআরবি ওয়ার্ল্ড ওয়াইডের সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল লিটন বলেন, 'গত বছরের ঐতিহাসিক বর্ষবরণ সারা বিশ্বব্যাপী আলোড়ন তৈরি করেছে। এবার আমরা চেষ্টা করছি যুক্তরাষ্ট্রের ৫২টি অঙ্গরাজ্যে বসবাসরত বাঙালি অভিবাসীদের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করার। ইতোমধ্যে ২৫টি অঙ্গরাজ্য বরণ অনুষ্ঠানে যুক্ত হওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছে। বাঙালি সংস্কৃতিপ্রেমী অভিবাসীরা শত কণ্ঠের এই আয়োজনকে সহস্র কণ্ঠে নিয়ে যাবেন সেই প্রত্যাশা করছি।'

Comments

The Daily Star  | English

Broadband internet restored in selected areas

Broadband internet connections were restored on a limited scale yesterday after 5 days of complete countrywide blackout amid the violence over quota protest

7h ago