ব্যাংক

কেলেঙ্কারির তথ্য গণমাধ্যমে, বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মকর্তাদের শোকজ নোটিশ

ব্যাংক খাতের কয়েকটি কেলেঙ্কারির তথ্য গণমাধ্যমে প্রকাশ পাওয়ায় বাংলাদেশ ব্যাংকের বেক কয়েকজন কর্মকর্তাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুসন্ধানে সম্প্রতি এসব কেলেঙ্কারির তথ্য উঠে এসেছিল।
ছবি: সংগৃহীত

ব্যাংক খাতের কয়েকটি কেলেঙ্কারির তথ্য গণমাধ্যমে প্রকাশ পাওয়ায় বাংলাদেশ ব্যাংকের বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুসন্ধানে সম্প্রতি এসব কেলেঙ্কারির তথ্য উঠে এসেছিল।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সূত্রগুলো জানায়, গত দুই সপ্তাহে প্রায় ১০ জন কর্মকর্তাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বাংলাদেশ ব্যাংকের একাধিক কর্মকর্তা বলেছেন, কেন্দ্রীয় ব্যাংকের শীর্ষ পর্যায় থেকে যে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে তা নজিরবিহীন। আগে কখনো এমনটা ঘটেনি।

কারণ দর্শানোর নোটিশ পাওয়া বেশিরভাগ কর্মকর্তারাই সাংবাদিকদের সঙ্গে কোনো সম্পর্ক রাখেন না বলে জানান তারা।

এই নোটিশ জারির পেছনে কাজ করেছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের একজন ডেপুটি গভর্নর। এতে কর্মকর্তাদের মধ্যে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে।

তারা বলছেন, ব্যাংক খাতে যেসব কেলেঙ্কারি ঘটছে তার তথ্য গোপন রাখতে চাইছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। কারণ দর্শানোর নোটিশ এরকমই ইঙ্গিত বহন করছে বলে মনে করা হচ্ছে।

যোগাযোগ করা হলে বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র মো. সিরাজুল ইসলাম বলেন, কেন্দ্রীয় ব্যাংক সাধারণত চিঠি দিয়ে আর্থিক কেলেঙ্কারি সংক্রান্ত তথ্য কেলেঙ্কারিতে জড়িত ব্যাংকগুলোকে পাঠায়।

তিনি বলেন, এ ধরনের দুর্নীতি সংক্রান্ত তথ্য ব্যাংক থেকে প্রকাশ করা হতে পারে।

এছাড়াও, কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কোনো কর্মকর্তার গণমাধ্যমে তথ্য দেওয়ার অনুমতি নেই, কারণ এই কাজের দায়িত্ব বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্রের।

আবদুর রউফ তালুকদার গত ১২ জুলাই গভর্নর হিসেবে যোগদানের পরপরই মতিঝিলে বাংলাদেশ ব্যাংকের সদর দপ্তরে সাংবাদিকদের প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হয়। পরে অবশ্য সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করা হয়।

Comments