মোবাইল ক্যামেরায় নীলটেপ, ১০০ নিরাপত্তারক্ষীর ঘেরাটোপ: বিয়ের প্রস্তুতি পরিণীতি-রাঘবের

বিয়ের অনুষ্ঠানের ৩ দিন হোটেল ছেড়ে বেরোতে পারবেন না সেখানকার কর্মচারীরা।
বলিউড অভিনেত্রী পরিণীতি চোপড়া ও আম আদমি পার্টির সংসদ সদস্য রাঘব চাড্ডা। ছবি: সংগৃহীত

এক দিন পরই বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন বলিউড অভিনেত্রী পরিণীতি চোপড়া ও আম আদমি পার্টির সংসদ সদস্য রাঘব চাড্ডা। কড়া নিরাপত্তায় উদয়পুরে বিয়ে করছেন এই তারকা জুটি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানায়, আজ শুক্রবার সকালেই উদয়পুরের উদ্দেশে দিল্লি ছেড়েছেন পরিণীতি ও রাঘব। দিল্লি বিমানবন্দরে একসঙ্গে গণমাধ্যমকর্মীদের ক্যামেরাবন্দিও হয়েছেন তারা।

তাদের বিয়ের আসর উদয়পুরের হোটেল লীলা প্যালেসে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়েছে। পরিণীতি আর রাঘবের পরিবারের সদস্যরা উদয়পুরের আলাদা আলাদা হোটেলে থাকবেন। রাঘবের পরিবার তাজ লেক প্যালেসে আর পরিণীতির পরিবার লীলা প্যালেসে থাকবে।

আজ শুক্রবার সকালেই উদয়পুরের উদ্দেশে দিল্লি ছেড়েছেন পরিণীতি ও রাঘব। ছবি: সংগৃহীত

লীলা প্যালেসে লেকের মাঝখানে তৈরি হয়েছে বিয়ের মণ্ডপ। জানা গেছে, বরযাত্রীদের হোটেল থেকে নৌকায় 'দ্য লীলা প্যালেস' এ আনা হবে। পুলিশ ও অতিরিক্ত বাহিনী ছাড়া ব্যক্তিগত ১০০ নিরাপত্তা রক্ষী থাকবেন বিয়ের আসরে। লেকের মাঝখানে ৪ থেকে ৫টি নৌকায়ও থাকবেন নিরাপত্তারক্ষীরা।

এ বিয়ে উপলক্ষে শহরের ১৫টি স্থানে কড়া নিরাপত্তা বেষ্টনী তৈরি করা হয়েছে। গোপনীয়তা বজায় রাখতে বিয়ের অনুষ্ঠানের কয়েকদিন হোটেল কর্মচারী ছাড়া অন্য কেউ সেখানে প্রবেশ করলে তাদের পুরোপুরি স্ক্যান করা হবে।

অতিথিদের মোবাইল ক্যামেরা ব্যবহারের ক্ষেত্রেও রয়েছে কড়াকড়ি। কেউ যাতে বিয়ের কোনো অনুষ্ঠানের ছবি তুলতে না পারে সেই কারণে বিয়ের আসরে প্রবেশের আগেই মোবাইল ফোনে লাগানো হবে বিশেষ ধরনের নীল টেপ। এই টেপের বিশেষত্ব হচ্ছে, এক বার এটি ফোনের ক্যামেরায় লাগানোর পর সেটি খুলে ফেললে টেপে একটি তীরচিহ্ন দেখতে পাওয়া যাবে। এর থেকে সহজেই বোঝা যাবে যে, ক্যামেরা ব্যবহারের জন্য টেপ সরানো হয়েছে। শুধু নিমন্ত্রিতদের নয়, হোটেলকর্মী, ডেকোরেটর, শেফসহ সবার মোবাইলেই এই টেপ লাগানো হচ্ছে।

বিয়ের অনুষ্ঠানের ৩ দিন হোটেল ছেড়ে বেরোতে পারবেন না সেখানকার কর্মচারীরা।

লীলা প্যালেসে লেকের মাঝখানে তৈরি হয়েছে বিয়ের মণ্ডপ। ছবি: সংগৃহীত

ভারতীয় গণমাধ্যম ই-টাইমসের খবর অনুযায়ী, আগামীকাল শনিবার উদয়পুরে সকাল ১০টায় পরিণীতির 'চূড়া সিরিমনি' (পাঞ্জাবি বিয়ের একটি রীতি) হবে। এরপর বিকেলে জমকালো সংগীত জলসার আয়োজন রাখা হয়েছে। রোববার সকালে রাঘবের 'সেহরাবন্দি' অনুষ্ঠান হবে। এদিনই দুপুর ১টা থেকে ২টার মধ্যে রাঘব ও বরযাত্রীরা নৌকায় চেপে লীলা প্যালেসে যাবেন। বেলা সাড়ে ৩টার দিকে হবে বিয়ের অনুষ্ঠান। সন্ধ্যা ৬টার দিকে পরিণীতির বিদায়ী অনুষ্ঠান হবে। রাত সাড়ে ৮টার পর তাদের দুই পরিবারের পক্ষ থেকে রাজকীয় সংবর্ধনার আয়োজন রাখা হয়েছে।

বিখ্যাত বলিউড অভিনেত্রী ও জনপ্রিয় রাজনীতিবিদ, সংসদ সদস্যের এই বিয়েতে দিল্লি ও পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী থেকে শুরু করে অনেক গুরুত্বপূর্ণ রাজনীতিবিদ এবং বলিউড তারকাদের উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে।

পরিণীতির চূড়া অনুষ্ঠান যে সুইটে হতে চলেছে, তা সম্পূর্ণভাবে কাচ দিয়ে নির্মাণ করা। এই সুইটের এক রাতের ভাড়া ৯ থেকে ১০ লাখ রুপি (প্রায় ১২ লাখ টাকা)।

জানা গেছে, অতিথিদের জন্য লীলা প্যালেসের ৮টি সুইট আর ৮০টি ঘর বুকিং করা হয়েছে।

পরিণীতিকে কনের বেশে সাজাতে বিশেষ প্রসাধনশিল্পী ও মেহেদিশিল্পীরা দিল্লি থেকে আসছেন। ১২ জনের বেশি ভিডিওগ্রাহক আর চিত্রগ্রাহককে বিয়ের বিশেষ মুহূর্তগুলো বন্দী করার জন্য নিযুক্ত করা হয়েছে।

Comments

The Daily Star  | English
IMF lowers Bangladesh’s economic growth

IMF calls for smaller budget amid low revenue receipts

The IMF mission suggested that the upcoming budget, which will be unveiled in the first week of June, should be smaller than the projection, citing a low revenue collection, according to a number of finance ministry officials who attended the meeting.

1h ago