রাশিয়ার পশ্চিমাঞ্চলে ইউক্রেনের হামলায় ২০ জন নিহতের দাবি

‘কিয়েভ সরকার বেলগরদ শহরে নির্বিচারে হামলা চালিয়েছে’ উল্লেখ করে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক টেলিগ্রাম পোস্টে বলা হয়, হামলায় নিষিদ্ধ গুচ্ছ বোমা ব্যবহারের পাশাপাশি চেক প্রজাতন্ত্রের তৈরি ভাম্পায়ার রকেট ছোড়া হয়েছে।
বেলগরদে হামলা
রাশিয়ার বেলগরদ শহরে একটি গাড়ির আগুন নেভাচ্ছেন দমকল বাহিনীর কর্মীরা। দেশটির দাবি ইউক্রেন এই শহরটিতে হামলা চালিয়েছে। ৩০ ডিসেম্বর ২০২৩। ছবি: রয়টার্স

রাশিয়ার দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় বেলগরদ প্রদেশের রাজধানী বেলগরদ শহরে প্রতিবেশী ইউক্রেনের হামলায় অন্তত ২০ জন নিহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে দুই শিশু আছে।

গতকাল শনিবার বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ তথ্য জানায়।

সংবাদ প্রতিবেদনে বলা হয়, বেলগরদ প্রদেশটি ইউক্রেনের সীমান্তবর্তী হওয়ায় ইউক্রেন মাঝেমধ্যে এখানে হামলা চালায়।

'কিয়েভ সরকার বেলগরদ শহরে নির্বিচারে হামলা চালিয়েছে' উল্লেখ করে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক টেলিগ্রাম পোস্টে বলা হয়, হামলায় নিষিদ্ধ গুচ্ছ বোমা ব্যবহারের পাশাপাশি চেক প্রজাতন্ত্রের তৈরি ভাম্পায়ার রকেট ছোড়া হয়েছে।

এই অপরাধের 'বদলা' নেওয়ার কথাও পোস্টে জানানো হয়।

হামলার ঠিক আগে বেলগরদ প্রদেশজুড়ে সাইরেন বাজানো হয় এবং প্রাদেশিক গভর্নর ভিয়াচেস্লাভ গ্লাদকভ সবাইকে নিরাপদ জায়গায় আশ্রয় নেওয়ার অনুরোধ করেন।

রুশ সংবাদমাধ্যম আরটি জানায়, আজ রোববার ভোরে গভর্নর গ্লাদকভ টেলিগ্রাম পোস্টে বলেন, গতকালের হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২২ জন হয়েছে।

এই হামলায় ১০৯ জন আহত হয়েছেন বলেও জানান তিনি।

গভর্নরের বরাত দিয়ে আরটির প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, ইউক্রেনের হামলায় শহরটির অবকাঠামোর অনেক ক্ষতি হয়েছে। উদ্ধারকাজে সহায়তার জন্য অন্যান্য শহর থেকে সরকারি কর্মীদের আনা হয়েছে।

এতে বলা হয়—হামলায় ১০০-র বেশি গাড়ি, বেশ কয়েকটি দোকান, ৩০টি অ্যাপার্টমেন্ট, পানি ও গ্যাস সরবরাহ ব্যবস্থা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

Comments

The Daily Star  | English

Change Maker: A carpenter’s literary paradise

Right in the heart of Jhalakathi lies a library stocked with over 8,000 books of various genres -- history, culture, poetry, and more.

4h ago