প্রথমবারের মতো রাজশাহীর আম যাচ্ছে রাশিয়ায়

আগামীকাল শনিবার সকালে এয়ার আরাবিয়ার জি৯-৫১৭ ফ্লাইট ২০০ কেজি গৌরমতি, ১০০ কেজি কাটিমনসহ মোট অন্তত ৩০০ কেজি আম নিয়ে রাশিয়ার উদ্দেশে ঢাকা ছেড়ে যাবে।
ছবি: সংগৃহীত

রাজশাহীভিত্তিক একটি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান রাশিয়ার বাজারে গৌরমতি ও কাটিমন জাতের আম পাঠাচ্ছে।

আগামীকাল শনিবার সকালে এয়ার আরাবিয়ার জি৯-৫১৭ ফ্লাইট ২০০ কেজি গৌরমতি, ১০০ কেজি কাটিমনসহ মোট অন্তত ৩০০ কেজি আম নিয়ে রাশিয়ার উদ্দেশে ঢাকা ছেড়ে যাবে।

এমটিবি অ্যাগ্রো অ্যান্ড গার্ডেনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মাহতাব আলী দ্য ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, 'এই প্রথমবারের মতো কোনো বাংলাদেশি আম রাশিয়ায় যাচ্ছে। ক্রেতারাও রুশ, রাশিয়ায় বসবাসরত কোনো বাংলাদেশি নয়।"

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল উপজেলার কুন্দুয়া গ্রামের নাজিম উদ্দিনের বাগান থেকে আমগুলো সংগ্রহ করা হয়েছে।

নাজিম উদ্দিন বলেন, 'গৌরমতি ও কাটিমন জাতের ফল সারা বছর ধরে থাকে, কিন্তু সর্বাধিক লাভের জন্য কেবল আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসে এই আমগুলো পাড়া হয়। এ সময় অন্য সব জাতের জন্য মৌসুম শেষ হয়ে যায়।'

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের জন্য কাজ করা রাশিয়ান কোম্পানি ন্যাশনাল ইলেকট্রিক এলএলসির অংশীদার হিসেবে আমগুলো রাশিয়ায় আমদানি করছে এমটিবি অ্যাগ্রোর বিপণন।  এমটিবি অ্যাগ্রো অ্যান্ড গার্ডেনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মাহতাব আলী দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'রাশিয়ায় আম রপ্তানি করা সহজ ছিল না। আমরা গত ৩ বছর ধরে চেষ্টা করছি। সব বাধা অতিক্রম করে আমরা এ বছরই সফল হয়েছি।'

রাশিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত কামরুল আহসান এবং রাশিয়ান ফেডারেশনের রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার ভিকেন্তেভিচ মানটিটস্কির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তিনি বলেন, 'এই মাইলফলক স্থাপনে দুই দেশের দূতাবাস একযোগে কাজ করেছে। নিরাপদ ও স্বাস্থ্যকর আম এবং উপযুক্ত প্যাকেজিং নিশ্চিত করে আমি আমাদের আমের একটি ব্র্যান্ড ইমেজ প্রতিষ্ঠা করতে সক্ষম হয়েছি।'

রাশিয়ার আম আমদানি নীতিমালা অনুযায়ী গত বছর বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটে (বিএআরআই) বাংলাদেশি আম পরীক্ষা করে রুশ কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠানো হয়।

'রুশ কর্তৃপক্ষ আমের নমুনা পরীক্ষা করে আগামী ৫ বছরের জন্য আমাদেরকে রাশিয়ায় আম রপ্তানির অনুমতি দিয়েছে। আগামী বছর খিরসাপাত আমের জিআই পণ্যসহ অন্যান্য জাতের আম রাশিয়ায় পাঠানোর ব্যাপারে আমরা আশাবাদী,' যোগ করেন তিনি।

এ বিষয়ে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের আঞ্চলিক অতিরিক্ত পরিচালক শামসুল ওয়াদুদ বলেন, 'আমরা সবসময় নতুন বাজার খুঁজছি এবং রাজশাহী অঞ্চল থেকে প্রতি বছর আম রপ্তানি বাড়ছে। গত বছর রাজশাহী, নওগাঁ ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা থেকে অন্তত ২২২ টন আম রপ্তানি হয়েছিল, এ বছর জেলা থেকে আম রপ্তানি ৩৮০ টন অতিক্রম করেছে।'

Comments

The Daily Star  | English

Battery-run rickshaw drivers set fire to police box in Kalshi

Battery-run rickshaw drivers set fire to a police box in the Kalshi area this evening following a clash with law enforcers in Mirpur-10 area

46m ago