বাংলাদেশ

ভবিষ্যত স্থপতিদের অনুপ্রাণিত করতে ‘কেএসআরএম অ্যাওয়ার্ডস ফর ফিউচার আর্কিটেক্টস’

প্রতি বছরের মতো এবারও দেশের তিনজন উদীয়মান মেধাবী স্থপতিকে সম্মাননা দেওয়া হবে।
‘অ্যাওয়ার্ডস ফর ফিউচার আর্কিটেক্টস’র সংবাদ সম্মেলনে আয়োজক ও অতিথিরা। ছবি: সংগৃহীত

ভবিষ্যৎ স্থপতিদের অনুপ্রাণিত করার জন্য পঞ্চমবারের মতো 'কেএসআরএম অ্যাওয়ার্ডস ফর ফিউচার আর্কিটেক্টস: বেস্ট আন্ডারগ্রাজুয়েট থিসিস' অ্যাওয়ার্ড আয়োজন করা হয়েছে।

প্রতি বছরের মতো এবারও দেশের তিনজন উদীয়মান মেধাবী স্থপতিকে সম্মাননা দেওয়া হবে।

শিল্প প্রতিষ্ঠান কেএসআরএম ও ইনস্টিটিউট অব আর্কিটেক্টস বাংলাদেশের (আইএবি) যৌথ উদ্যোগে এ আয়োজন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

এ উপলক্ষে আজ শনিবার আগারগাঁও আইএবি মিলনায়তনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে আয়োজনে বক্তারা বলেন, আইএবির সহায়তায় কেএসআরএমের আয়োজিত একটি মর্যাদাপূর্ণ স্বীকৃতি 'কেএসআরএম অ্যাওয়ার্ডস ফর ফিউচার আর্কিটেক্ট'। এই অ্যাওয়ার্ডের উদ্দেশ্য হলো বাংলাদেশের আইএবি স্বীকৃত আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের স্নাতক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের সেরা দূরদর্শী প্রকল্পগুলোকে সমাদৃত করা।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, আইএবি স্বীকৃত দেশের স্বনামধন্য ১৩টি আর্কিটেকচার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের স্নাতক পর্যায়ের শেষবর্ষের শিক্ষার্থীরা এই অ্যাওয়ার্ড প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছেন। প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে সেরা তিন প্রতিযোগী চূড়ান্ত প্রতিযোগিতায় অংশ নিবেন। অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের উপস্থাপিত প্রজেক্টের মধ্য থেকে সেরা তিনজনকে বাছাই করবেন দেশের জ্যেষ্ঠ পাঁচজন স্থপতি নিয়ে গঠিত জুরি বোর্ড।

আজ সকাল ১০টায় আইএবি সেন্টারে প্রজেক্টগুলোর প্রদর্শনী উদ্বোধন করা হয়। চারদিনব্যাপী এই প্রদর্শনী চলবে ১৩ ফেব্রুয়ারি রাত ৮টা পর্যন্ত। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে। জাঁকজমকপূর্ণ এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ১৩ ফেব্রুয়ারি আইএবি সেন্টারে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়া হবে।

প্রথম পুরস্কার বিজয়ী পাবেন ১ লাখ টাকা, দ্বিতীয় পুরস্কার বিজয়ী ৭৫ হাজার টাকা এবং তৃতীয় পুরস্কার বিজয়ী পাবেন ৫০ হাজার টাকা। এ ছাড়া, ক্রেস্ট ও সনদ দেওয়া হবে বিজয়ীদের।

কেএসআরএমের মহাব্যবস্থাপক (মার্কেট রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট) কর্নেল আশফাকুল ইসলাম (অব.) বলেন, '২০১৯ সালে প্রবর্তিত অ্যাওয়ার্ডটি স্থাপত্যের স্নাতক পর্যায়ে শিক্ষার্থী এবং ডিপার্টমেন্টগুলোকে অনুপ্রাণিত করার জন্য দেওয়া হয়। প্রদর্শনী এবং প্রকাশনা মিলিয়ে এই অ্যাওয়ার্ড মেধাবী শিক্ষার্থী ও প্রকল্পগুলোর উপস্থাপনের একটি গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হয়ে উঠেছে।'

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন আইএবি সাধারণ সম্পাদক নবী নেওয়াজ খান। উপস্থিত ছিলেন জুড়ি সদস্য ও নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক স্থপতি শাহেলা জোয়ার্দার, জুড়ি সদস্য ও মরফো জেনেসিস পরিচালক স্থপতি শুভ্র শোভন চৌধুরী, আইএবির সহ-সভাপতি (জাতীয় অ্যাফেয়ার্স) ও ইসি সদস্য স্থপতি মোহাম্মদ আলী নকি, কেএসআরএমের আইন উপদেষ্টা ব্যারিস্টার সাইফুল আলম চৌধুরী, গণমাধ্যম ও জনসংযোগ উপদেষ্টা মিজানুল ইসলাম, আইএবি সম্পাদক (শিক্ষা) স্থপতি ড. নওরোজ ফাতেমী, অ্যাওয়ার্ড সমন্বয়কারী স্থপতি সৈয়দা সাইখা সুদাহ্, কেএসআরএমের সিনিয়র ব্যবস্থাপক এএসএম নেওয়াজ মোহাম্মদ, জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা মিজানুল ইসলাম, তাহুমুল হক বাবু প্রমুখ।

এবারের প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলো হচ্ছে—বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট), চট্টগ্রাম প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট), খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি  বিশ্ববিদ্যালয়, নর্থ সাউথ  বিশ্ববিদ্যালয়, আমেরিকান ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ (এআইইউবি), ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়, আহছানউল্লাহ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, স্ট্যামফোর্ট বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশ, সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয়, স্টেট ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ, লিডিং বিশ্ববিদ্যালয় ও এশিয়া প্যাসিফিক ইউনিভার্সিটি।

Comments

The Daily Star  | English

Loan default now part of business model

Defaulting on loans is progressively becoming part of the business model to stay competitive, said Rehman Sobhan, chairman of the Centre for Policy Dialogue.

1h ago