কেবল ‘বিগ ফাইভ’ নিয়েই মাতামাতি চান না রোডস

বাংলাদেশ খারাপ খেললেই হাহাকার উঠে, পাঁচ সিনিয়র ক্রিকেটারের সবাই অবসরে গেলে কি হবে দলের? এই হাহাকারের কারণ, পাঁচ সিনিয়র ক্রিকেটারকে ঘিরেই গেল ক’বছরে সাফল্যের ছবি এঁকে চলেছে বাংলাদেশ। তাই বলে এই পাঁচজনের বাইরে কেউ পারফরম্যান্স করছেন না এমনটাও নয়। প্রধান কোচ স্টিভ রোডস তাই আকুতি জানালেন, তাদের দলটা এগারো জনের। এই পাঁচজনের বাইরে যারা অবদান রেখে যাচ্ছেন নজর আসুক তাদের দিকেও।
Steve Rhodes
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

বাংলাদেশ খারাপ খেললেই হাহাকার উঠে, পাঁচ সিনিয়র ক্রিকেটারের সবাই অবসরে গেলে কি  হবে দলের? এই হাহাকারের কারণ, পাঁচ সিনিয়র ক্রিকেটারকে ঘিরেই গেল ক’বছরে সাফল্যের ছবি এঁকে চলেছে বাংলাদেশ। তাই বলে এই পাঁচজনের বাইরে কেউ পারফরম্যান্স করছেন না এমনটাও নয়। প্রধান কোচ স্টিভ রোডস তাই আকুতি জানালেন, তাদের দলটা এগারো জনের। এই পাঁচজনের বাইরে যারা অবদান রেখে যাচ্ছেন নজর আসুক তাদের দিকেও।

জিম্বাবুয়ে সিরিজে পাঁচ সিনিয়র ক্রিকেটারের দুজনই ছিলেন না। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সবাই থাকলেও দলকে জেতাতে তাদের বাইরেও অবদান রেখেছেন অন্যরা। এশিয়া কাপেও দেখা মিলেছে তেমন ঝলক।

মাশরাফি মর্তুজা, সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। এই পাঁচজনকে এক ব্র্যাকেটে বন্দি করে ‘ফ্যান্টাসটিক ফাইভ’, ‘পঞ্চপাণ্ডব’ নানা নামে অবিহিত করা হচ্ছে। সম্প্রতি সব ফরম্যাট মিলিয়ে এই পাঁচজন মিলে খেলে ফেলেছে একশো ম্যাচ। তাই দেশের ক্রিকেটে জনপ্রিয় বিগ ফাইভের এই হাইপের কথা জানা আছে রোডসের।

তবে এদের বাইরেও যে দলের অন্যরা দারুণ নৈপুণ্যে দেখাচ্ছে সেসবের দিকেও নজর দিতে বললেন তিনি। দলটাকে কেবল পাঁচজনের না বানাতে জানালেন আকুতি, ‘এটা দারুণ ব্যাপার (অন্যদের পারফর্ম করা)। আমি জানি লোকে কেন বিগ ফাইভের কথা বলে। কিন্তু আমরা তো একটি দল, একটি স্কোয়াড। মিরাজের কথা ধরুন, তার ফর্ম অবিশ্বাস্য। সব ফরম্যাটে ভালো করছে। নিজেকে মেলে ধরার দারুণ এক উদাহরণ সে। এমনকি এশিয়া কাপের ফাইনাল ওপেনে নেমেও ভাল করেছিল। সৌম্য ফিরে এসে খুবই ভাল খেলছে। লিটন বরাবরই বিপজ্জনক ব্যাটসম্যান, বড় ম্যাচে ভালো করেছে।’

‘আরও অনেকে অবদান রাখছে। মোস্তাফিজের কথা কেউ বলে না। কিন্তু ওয়ানডেতে কী দুর্দান্ত সে! বিশ্বের সেরা ডেথ বোলারদের একজন। সে কি বিগ ফাইভের অংশ? আমি নিশ্চিত নই। এজন্যই গণমাধ্যমেরও এটা বোঝা জরুরি যে আমরা ১১ জনের দল। ১৫-১৬ জনের স্কোয়াড। এতে তরুণ ও সিনিয়র, সব ক্রিকেটারের ওপর থেকে চাপও সরে যাবে। আমরা কেবল ৫ জন নই, আমরা ১১ বা এমনকি ১৫-২০ জন। মূল ব্যাপার হলো, আমাদের গভীরতা বাড়ছে। এটাই দেশের বাংলাদেশের ক্রিকেটকে এগিয়ে নিতে সাহায্য করবে।’

 

Comments

The Daily Star  | English

The bond behind the fried chicken stall in front of Charukala

For close to a quarter-century, a business built on mutual trust and respect between two people from different faiths has thrived in front of Dhaka University's Faculty of Fine Arts

1h ago