নির্বাচনী সহিংসতায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৯ জন

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দিনে রাজশাহীর একটি কেন্দ্রের বাইরে বিএনপি সমর্থকদের হামলায় আহত ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের এক কর্মী আজ (৩১ ডিসেম্বর) সকালে মারা গেছেন। এ নিয়ে নির্বাচনী সহিংসতায় সারাদেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৯ জনে। নিহতদের মধ্যে আনসার সদস্যসহ সরকার সমর্থক, বিরোধী দলের সদস্য ও সাধারণ মানুষও রয়েছেন।
Poll violence
৩০ ডিসেম্বর ২০১৮, সিলেট শহরের মদিনা মার্কেটের সামনে একটি মোটরসাইকেলে আগুন। ছবি: সংগৃহীত

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দিনে রাজশাহীর একটি কেন্দ্রের বাইরে বিএনপি সমর্থকদের হামলায় আহত ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের এক কর্মী আজ (৩১ ডিসেম্বর) সকালে মারা গেছেন। এ নিয়ে নির্বাচনী সহিংসতায় সারাদেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৯ জনে। নিহতদের মধ্যে আনসার সদস্যসহ সরকার সমর্থক, বিরোধী দলের সদস্য ও সাধারণ মানুষও রয়েছেন।

রাজশাহী

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের একজন জ্যেষ্ঠ চিকিৎসকের বরাতে আমাদের স্থানীয় সংবাদদাতা জানান, নিহতের নাম ইসমাইল হোসেন (৫০)। হামলার পর আহত অবস্থায় তাকে হাসপাতালে আনা হয়েছিলো। চিকিৎসাধীন অবস্থায় সকালে তিনি মারা যান।

তিনি গোদাগারী উপজেলার দাওগাঁ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান ছিলেন। গতকাল গোদাগারীর পালপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে বিএনপি’র লোকজনের হামলায় আহত হন তিনি।

রাজশাহী-৩ আসনের মোহনপুরে পাকুরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে বিএনপি’র হামলায় আওয়ামী লীগ সমর্থক মেরাজুদ্দিন (২২) নিহত হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। রাজশাহীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুর রাজ্জাক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

রাজশাহী-১ আসনে মোহাম্মদপুর উচ্চবিদ্যালয়ের সামনে আওয়ামী লীগ-বিএনপির সংঘর্ষে গতকাল দুপুর ১২টার দিকে মোহাম্মদ মোদাছসের (৪৫) নামের এক আওয়ামী লীগ কর্মী মারা যান।

কুমিল্লা

কুমিল্লার চান্দিনায় মুজিব (৩৫) নামে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের এক সমর্থক গুলিতে নিহত হয়েছেন। পুলিশের দাবি, ভোটকেন্দ্র থেকে ব্যালট পেপার ছিনতাই করার সময় সময় গুলি চালালে সে নিহত হয়।

কুমিল্লা-৭ আসনে পশ্চিম বেলাশ্বর ভোটকেন্দ্রে এই ঘটনা ঘটে। স্থানীয় এলডিপি প্রার্থী জানান নিহত ব্যক্তি ঐক্যফ্রন্টের সমর্থক। চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু ফয়সাল মিয়া নিহত হওয়ার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

দ্য ডেইলি স্টারের স্থানীয় প্রতিনিধি জানান, কুমিল্লা-১০ আসনের মুরগাঁ ভোটকেন্দ্রে আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের হামলায় বাচ্চু মিয়াঁ (৪৫) নামে বিএনপির এক সমর্থক নিহত হয়েছেন। নাঙ্গলকোট থানার উপ-পরিদর্শক আমিনুল ইসলাম সংঘর্ষের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তবে নিহত হওয়ার কথা তিনি নিশ্চিত করেননি।

চট্টগ্রাম

চট্টগ্রামের পটিয়ায় আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও ‘মোমবাতি’ প্রতীকের প্রার্থীর সমর্থকদের ত্রিমুখী সংঘর্ষে ১৮ বছর বয়সী আবু সাদেক নামের এক তরুণ নিহত হয়েছেন। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফরুজুল হক নিহতের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। সংঘর্ষের মাঝখানে পড়ে তিনি প্রাণ হারিয়েছেন। তবে তার রাজনৈতিক সংশ্লিষ্টতার ব্যাপারে নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

চট্টগ্রাম-১৬ আসনে জাতীয় পার্টির সমর্থক আহমেদ কবীর (৫৫) নামের একজন নিহত হয়েছেন। জাতীয় পার্টির পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে, তিনি পুলিশের গুলিতে নিহত হয়েছেন। তবে পুলিশ বলেছে, জাতীয় পার্টির নেতা-কর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে  তিনি প্রাণ হারিয়েছেন।

দিনাজপুর

দিনাজপুর-২ আসনে শহরগ্রাম প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনায় একজন সাধারণ ভোটার নিহত হয়েছেন। নিহতের নাম কিনা মোহাম্মদ (৬৫)। তিনি হার্ট এটাকে মারা গেছেন বলে দাবি করা হচ্ছে।

রাঙ্গামাটি

রাঙ্গামাটির কাউখালি উপজেলায় একটি ভোটকেন্দ্রে সকালে বিএনপির সঙ্গে সংঘর্ষে যুবলীগের এক নেতা নিহত হয়েছেন। তার নাম মো. বসির উদ্দিন (৩২)। কাউখালী থানার ওসি মঞ্জুরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

কক্সবাজার

কক্সবাজারে নির্বাচনী সহিংসতায় ছাত্রলীগের এক কর্মী নিহত হয়েছেন।

বগুড়া

বগুড়া ৪ আসনে আওয়ামী লীগ বিএনপি সংঘর্ষে আজিজুল হক (২৮) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। কাহালু থনার ওসি শওকত কবির ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

নোয়াখালী

নোয়াখালী-৩ আসনে তুলাতুলি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে জামায়াত-শিবিরের হামলায় এক আনসার সদস্য নিহত হয়েছেন নিহতের নাম নুরুন্নবী। গতকাল দুপুর ১২টা ৫০ মিনিটের দিকে সংঘর্ষের সময় তিনি নিহত হন।

নরসিংদী

নরসিংদী-৩ আসনে কুন্দারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে আওয়ামী লীগ ও একজন স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের পর মো. মিলন নামের আওয়ামী লীগের একজন পোলিং এজেন্টকে মৃত অবস্থায় পাওয়া গেছে।

এই কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার মাহবুব মৃধা দ্য ডেইলি স্টারকে এই খবরটি নিশ্চিত করেছেন।

গাজীপুর

গাজীপুরের সদর উপজেলার হরিনাল উচ্চ বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে সংঘর্ষে লিয়াকত আলী (৪৪) নামের সাবেক ছাত্রলীগের এক কর্মী নিহত হয়েছেন। গাজীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সমীর সূত্রধর জানান, ভোটকেন্দ্রের বাইরে সংঘর্ষের সময় বিএনপির নেতা-কর্মীরা তাকে কুপিয়ে হত্যা করে।

নাটোর

নাটোর-২ আসনে ভোট দেওয়াকে কেন্দ্র করে ভাতিজার সঙ্গে মারামারিতে হোসেন আলী (৪৮) নামের আওয়ামী লীগের এক কর্মী নিহত হয়েছেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার নাটাই (উত্তর) ইউনিয়নের রাজঘর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে গুলিবিদ্ধ হয়ে ইসরাইল মিয়া (২০) নামের একজন নিহত হয়েছেন। তিনি পেশায় রাজমিস্ত্রি ছিলেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সেলিম উদ্দিন বলেন, দুষ্কৃতিকারীরা অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে কেন্দ্র দখলে নেওয়ার চেষ্টা এবং আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরীর উপর হামলা করে। এসময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে থাকা আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা তাদের ছত্রভঙ্গ করতে গুলি ছুড়লে একজন গুলিবিদ্ধ হন।

সিলেট

সিলেট-৩ আসনের বালাগঞ্জ উপজেলায় আজিজপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সংঘর্ষে উপজেলা শাখার ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক সায়েম আহমেদ সোহেল নিহত হন।

উপজেলা বিএনপি’র মহাসচিব মজিবুর রহমান দাবি করেন পুলিশের গুলিতে সোহেলের মৃত্যু হয়েছে।

লালমনিরহাট

লালমনিরহাট সদর উপজেলার পাগলাহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে গতকাল সকাল ১০টার দিকে আওয়ামী লীগ-বিএনপি’র সংঘর্ষে স্থানীয় বিএনপি নেতা তোজ্জাম্মেল হক (৬৩) মারা যান।

পুলিশ বলছে, তাকে উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

যশোর

অভয়নগর উপজেলার পাথালিয়া প্রাথমিক স্কুলের সামনে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে আওয়ামী লীগ সমর্থকদের পিটুনিতে বারনি গ্রামের বিএনপির এজেন্ট সামছুর রহমান মোল্লার (৬৩) মৃত্যু হয়।

Comments

The Daily Star  | English
Awami League's peace rally

Relatives in UZ Polls: AL chief’s directive for MPs largely unheeded

Awami League lawmakers’ urge to tighten their grip on the grassroots seems to be prevailing over the party president’s directive to have their family members and close relatives withdraw from the upazila parishad polls.

3h ago