অভিনব এটিএম জালিয়াতি: ইউক্রেনের ৬ নাগরিক গ্রেপ্তার

ডাচ বাংলা ব্যাংকের অটোমেটেড টেলার মেশিনের (এটিএম) বুথ থেকে টাকা তোলা হলেও এর কোনো রেকর্ড ব্যাংকের সার্ভারে নেই। এমনকি কোনো গ্রাহকের হিসাব থেকেও টাকা কমে যায়নি।
offenders
গ্রেপ্তার হওয়া ইউক্রেনের ছয় নাগরিক। ছবি: সংগৃহীত
ডাচ বাংলা ব্যাংকের অটোমেটেড টেলার মেশিনের (এটিএম) বুথ থেকে টাকা তোলা হলেও এর কোনো রেকর্ড ব্যাংকের সার্ভারে নেই। এমনকি কোনো গ্রাহকের হিসাব থেকেও টাকা কমে যায়নি। 
 
নতুন এই অভিনব জালিয়াতির সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে রাজধানীর একটি হোটেল থেকে ছয় ইউক্রেনের নাগরিককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। 
 
ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা শাখার (পূর্ব) অতিরিক্ত উপকমিশনার শহীদুর রহমান দ্য ডেইলি স্টারকে জানান, গতকাল পান্থপথের হোটেল ওলিও ড্রিম হেভেন থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।
 
গ্রেপ্তার ছয়জন হলেন- ভালেনতিন সোকোলোভস্কি (৩৭), শেভচুক আলেগ (৪৬), দেনিস ভিতোমস্কি (২০), নাজারি ভজনোক (১৯), , সের্গেই উইক্রাইনেৎস (৩৩) ও ভালোদিমির ত্রিশেনস্কি (৩৭)।
 
পুলিশ ও ব্যাংক সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার দুজন বিদেশি নাগরিক রাজধানীর বাড্ডা এলাকায় ডাচ বাংলা ব্যাংকের এটিএম বুথ থেকে তিন লাখ টাকা উত্তোলন করেন এবং বুথের ভেতরে কিছু টাকা ফেলে রেখে যান।
 
বুথের নিরাপত্তারক্ষী বিষয়টি ব্যাংক কর্মকর্তাদের জানালে, তারা সিসিটিভি ফুটেজ বিশ্লেষণ করে দেখেন যে, দুই বিদেশি নাগরিক বুথ থেকে টাকা উত্তোলন করেছেন। তবে, এর কোনো রেকর্ড ব্যাংকের সার্ভারে নেই।
 
এদিকে, গত শনিবার রাজধানীর খিলগাঁওতে একই ব্যক্তিরা মুখে মাক্স ও মাথায় টুপি পড়ে একটি বুথ থেকে টাকা তুলতে গেলে নিরাপত্তারক্ষীরা তাদের সন্দেহ করে স্থানীয় লোকজনকে ডেকে আনেন। সে সময় তাদের সহায়তায় একজনকে আটক করা হয়। 
 
আটক হওয়া ব্যক্তির দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে শনিবার পান্থপথের ওই হোটেলে অভিযান চালিয়ে ছয় জালিয়াতকারীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তবে, এই চক্রের এক সদস্য এখনও পলাতক রয়েছেন বলে জানান পুলিশের ওই কর্মকর্তা।
 
শহীদুর রহমান আরও জানান, অভিযুক্তদের কাছ থেকে পাওয়া কার্ড ভিন্নভাবে কাজ করে। এই কার্ড এটিএম মেশিনে প্রবেশ করানোর পর বুথের সঙ্গে ব্যাংকের সার্ভারের সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। এতে তারা তাদের ইচ্ছেমতো টাকা তুলতে পারেন।
 
এই ধরনের অভিনব জালিয়াতি আগে কখনও দেখা যায়নি বলেও জানান তিনি।
 
ডাচ বাংলা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল কাশেম মো. শিরিন জানান, এটিএম বুথ থেকে টাকা উত্তোলনের জন্য এই জালিয়াতকারীরা নতুন ধরনের প্রযুক্তির আশ্রয় নিয়েছে।

Comments

The Daily Star  | English
Hamas-Israel conflict

Whose interest is Hamas serving?

During his 14-year rule over the past 15 years, Netanyahu did everything possible to keep Hamas in power in Gaza

14h ago