এক ওভারে দুইবার রিভিউ নিয়ে বাঁচলেন গেইল

মাঝে একটা বল ওয়াইড না হলে টানা দুই বল হতো। মিচেল স্টার্কের করা ইনিংসের তৃতীয় ওভারের শেষ দুই বলে দুইবার ক্রিস গেইলকে আউট দিলেন মাঠের আম্পায়ার। দুইবারই রিভিউ নেন গেইল। দুইবারই সফল।
ছবি: রয়টার্স

মাঝে একটা বল ওয়াইড না হলে টানা দুই বল হতো। মিচেল স্টার্কের করা ইনিংসের তৃতীয় ওভারের শেষ দুই বলে দুইবার ক্রিস গেইলকে আউট দিলেন মাঠের আম্পায়ার। দুইবারই রিভিউ নেন গেইল। দুইবারই সফল। পরের ওভারেও নিতে হয়েছে রিভিউ। কিন্তু সে যাত্রা আর ভাগ্য সঙ্গে থাকেনি।

প্রথমবার কট বিহাইন্ডের আউট দিয়েছিলেন আম্পায়ার। সে সিদ্ধান্তের বিপক্ষে রিভিউ নিতে এক মুহূর্ত দেরি করেননি গেইল। রিপ্লেতে দেখা যায় ব্যাটে বল কোন সংযোগই হয়নি। এমনকি প্যাডেও লাগেনি। তবে মজার ব্যাপার একটি আওয়াজ শোনা যায় স্পষ্ট। আর সেটা আসে স্টাম্পে বল লাগার কারণে। চলতি বিশ্বকাপে এমন হয়েছে আরও। স্টাম্পে লাগলেও বেল পড়েনি।

পরের বলটি ওয়াইড দেন স্টার্ক। এরপর বলটি ইয়র্কার দিতে চেয়েছিলেন স্টার্ক। ঠিকভাবে পারেননি। ফুলটাস বলটি ঠিকভাবে খেলতে পারেননি। রিপ্লেতে দেখা যায় লেগ স্টাম্পের বাইরে ছিল বল। তাতে বেঁচে যান গেইল।

শেষ পর্যন্ত সেই স্টার্কের বলেই আউট হয়েছেন গেইল। পরের ওভারে এলবিডাব্লিউর ফাঁদে পড়েন। আবারও রিভিউ নিয়েছিলেন। তবে আর বাঁচতে পারেননি। তবে আম্পায়ার্স কলে আউট হন তিনি। রিপ্লেতে দেখা যায় লেগ স্টাম্পের পাশে আঘাত লাগতো বলটি।

দুইবার জীবন পেয়ে কিছুটা হাত খুলে খেলার চেষ্টা করেছিলেন গেইল। প্যাট কামিন্সের এক ওভারে তিনটি চার মারেন তিনি। কিন্তু ভাগ্যটা সঙ্গে না থাকায় খুব বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি। শেষ পর্যন্ত ১৭ বলে ২১ রান করেছেন গেইল। তাতে ছিল ৪টি চারের মার।

Comments

The Daily Star  | English
Fire incident in Dhaka Bailey Road

Death is built into our cityscapes

Why do authorities gamble with our lives?

9h ago