কলকাতায় গাড়ি দুর্ঘটনায় ২ বাংলাদেশি নিহত হওয়ার ঘটনায় নতুন মোড়

আরসালান পারভেজ নন, ১৭ আগস্ট কলকাতার অভিজাত এলাকা শেক্সপিয়ার সরণিতে ঘাতক গাড়ি চালাচ্ছিলেন আরসালান চেইন রেস্তরার মালিকের বড় ছেলে রাগিব পারভেজ। শুধু তাই নয়, রাগিব দুর্ঘটনা ঘটিয়ে পরদিন সকালের ফ্লাইটে দুবাই পালিয়ে গিয়েছিলেন।

আরসালান পারভেজ নন, ১৭ আগস্ট কলকাতার অভিজাত এলাকা শেক্সপিয়ার সরণিতে ঘাতক গাড়ি চালাচ্ছিলেন আরসালান চেইন রেস্তরার মালিকের বড় ছেলে রাগিব পারভেজ। শুধু তাই নয়, রাগিব দুর্ঘটনা ঘটিয়ে পরদিন সকালের ফ্লাইটে দুবাই পালিয়ে গিয়েছিলেন। বুধবার দুপুরে কলকাতা বিমানবন্দর থেকে কলকাতার গোয়েন্দা পুলিশ তাকে গাড়ি দুর্ঘটনার দায়ে গ্রেপ্তার করেছে।

বুধবার সন্ধ্যায় কলকাতা পুলিশের সদর দফতর লালবাজারের যুগ্ম পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম) মরলি ধর শর্মা সাংবাদিকদের এই তথ্য জানান।  তিনি আরও বলেন, জাগুয়ার গাড়ির ডেটা অ্যানালাইসিস করে তথ্য নিশ্চিত করেন ফরেনসিক বিশেষজ্ঞরা এবং এরপরই পুলিশ তদন্ত শুরু করে এই তথ্য আবিষ্কার করে।

এর আগে শনিবার কলকাতা পুলিশ আরসালান রেস্তরার কর্ণধারের বড় ছেলে আরসালান পারভেজকে গ্রেপ্তার করে। ইতিমধ্যেই তাকে ২৯ আগস্ট পর্যন্ত রিমান্ড দিয়েছেন কলকাতার একটি আদালত।

১৭ আগস্ট কলকাতার শেক্সপিয়ার সরণিতে বৃষ্টির কারণে একটি  ট্রাফিক পয়েন্টের পাশে মাইনুল আলম এবং ফারাহানা ইসলাম তানিয়া নামের দুজন বাংলাদেশি পর্যটক দাঁড়িয়ে ছিলেন। রাত পৌনে দুটোর সময় সেখানে একটি দ্রুতগামী জাগুয়ার গাড়ি অপর একটি মার্সিডিজ গাড়িতে ধাক্কা দেয়। তাতেই মার্সিডিজ গাড়িটি গিয়ে আঘাত করে ট্রাফিক পয়েন্টে। এতে ট্রাফিক গার্ড শেডটি ভেঙে চাপা পড়েন বাংলাদেশি দুজন। ঘটনাস্থল থেকে তাদের কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন। এই ঘটনায় পুলিশ অনিচ্ছাকৃত খুন এবং সরকারি সম্পদ বিনষ্ট করার অপরাধে জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা করে।

কিন্তু নতুন প্রশ্ন এখন দাঁড়িয়েছে, তবে পুলিশ কিসের ভিত্তিতে আরসালান পারভেজকে গ্রেপ্তার করেছিল? খোঁজ নিয়ে জানা যাচ্ছে বড় ছেলেকে বাঁচাতে আরসালান রেস্তরার কর্ণধার নিজেই নাকি ছোট ছেলেকে দোষ স্বীকার করতে বলেছিলেন। যদিও এই বিষয়ে সরকারি কোনও মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

Comments

The Daily Star  | English

No global leader raised any questions about polls: PM

The prime minister also said that Bangladesh's participation in the Munich Security Conference reflected the country's commitment to global peace

5h ago