ড্র করলেই ইতিহাস, আত্মবিশ্বাসী আবাহনী কোচ

জিততে হবে না, ড্র করলেই মিলবে ফাইনালের টিকিট। এমন সমীকরণ আর ইতিহাস গড়ার হাতছানি নিয়ে উত্তর কোরিয়ার এপ্রিল টোয়েন্টি ফাইভ স্পোর্টস ক্লাবের মুখোমুখি হতে যাচ্ছে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। পিয়ংইয়ংয়ে এএফসি কাপের ইন্টার-জোন সেমিফাইনালের দ্বিতীয় লেগের ম্যাচটি শুরু হবে বুধবার (২৮ অগাস্ট) বাংলাদেশ সময় বেলা তিনটায়। আগের লেগে ঘরের মাঠে জয় পাওয়ায় এ ম্যাচে নামার আগে দারুণ আত্মবিশ্বাসী আবাহনীর পর্তুগিজ কোচ মারিও লেমোস।
ফাইল ছবি: ফিরোজ আহমেদ

জিততে হবে না, ড্র করলেই মিলবে ফাইনালের টিকিট। এমন সমীকরণ আর ইতিহাস গড়ার হাতছানি নিয়ে উত্তর কোরিয়ার এপ্রিল টোয়েন্টি ফাইভ স্পোর্টস ক্লাবের মুখোমুখি হতে যাচ্ছে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। পিয়ংইয়ংয়ে এএফসি কাপের ইন্টার-জোন সেমিফাইনালের দ্বিতীয় লেগের ম্যাচটি শুরু হবে বুধবার (২৮ অগাস্ট) বাংলাদেশ সময় বেলা তিনটায়। আগের লেগে ঘরের মাঠে জয় পাওয়ায় এ ম্যাচে নামার আগে দারুণ আত্মবিশ্বাসী আবাহনীর পর্তুগিজ কোচ মারিও লেমোস।

আবাহনী এএফসি কাপের গ্রুপ পর্বের বাধা পাড়ি দেওয়ায় নড়েচড়ে বসেছিলেন দেশের ফুটবল ভক্তরা। সেমির প্রথম লেগে জয় পাওয়ায় তাদের আগ্রহের পারদ গিয়ে ঠেকেছে চূড়ায়। তাই এদিন সবার চোখ থাকবে উত্তর কোরিয়ায় অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ম্যাচটিতে। এপ্রিল টোয়েন্টি ফাইভ ১৮ বারের ঘরোয়া লিগ চ্যাম্পিয়ন। এখন পর্যন্ত এএফসি কাপের চলতি আসরে ঘরের মাঠে কোনো ম্যাচ হারেনি তারা। তাই আবাহনীকে পড়তে হচ্ছে কঠিন পরীক্ষায়। তাছাড়া ঢাকায় বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে প্রথম লেগের ফল ৪-৩ হওয়ায়, এ ম্যাচে ন্যূনতম ১-০ ব্যবধানে জিতলেই ইন্টার-জোন ফাইনালে জায়গা করে নেবে এপ্রিল টোয়েন্টি ফাইভ।

আবাহনীর অবশ্য ড্র করলেই চলবে। আর প্রতিপক্ষ শক্তিশালী হলেও গেল ম্যাচে জয় তুলে নিয়েছিল তারা। সেই জয় সাহসের জোগান দিচ্ছে লেমোসের মনে, ‘জয় খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয় এবং ঢাকায় জয় পাওয়ায় আমাদের আত্মবিশ্বাস বেড়েছে। আমরা জানি এটা কঠিন হতে যাচ্ছে কিন্তু আমরা ফাইনালে (ইন্টার-জোনের) উঠতে চাই। আর সেজন্য আমাদের পিয়ংইয়ংয়ে ভালো একটি ফল দরকার।’

সুখবর হচ্ছে, আবাহনী এ ম্যাচে পাচ্ছে মিশরের ডিফেন্ডার আলিলদিন নাসেরকে। এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে মাঠে ফিরতে যাচ্ছেন তিনি। বলার অপেক্ষা রাখে না, তাতে দলটির রক্ষণভাগ আরও নিরেট হয়ে উঠবে। মাঝমাঠ বাড়তি শক্তি জোগাতে পারেন অভিজ্ঞ মামুনুল ইসলাম। চোটের কারণে প্রথম লেগে খেলতে পারেননি তিনি। তবে ফিট হয়ে মাঠে ফেরার জোরালো সম্ভাবনা রয়েছে তার।

এগিয়ে থাকায় খেলার কৌশলেও কিছুটা পরিবর্তন আনছেন লেমোস। খুব বেশি ঝুঁকি নিতে রাজি নন তিনি। তাই বলে পুরোপুরি রক্ষণাত্মক ভূমিকায়ও দলকে খেলাতে চান না লেমোস, ‘আমরা বুঝেছি যে কেবল রক্ষণাত্মক ভূমিকায় থেকে জয় পাওয়া সম্ভব না। যদিও আমরা শেষ ম্যাচে পাঁচ ডিফেন্ডার নিয়ে খেলেছি, তবে আমরা পাল্টা আক্রমণ করতে চেয়েছি। আশা করছি এপ্রিল টোয়েন্টি ফাইভ ঝুঁকি নেবে এবং তার ফলে আমরা পাল্টা আক্রমণের জায়গা পেয়ে যাব এবং নিজেরা কিছু গোল করতে পারব।’

Comments

The Daily Star  | English

President appoints seven new state ministers

President Mohammed Shahabuddin today appointed seven new state ministers in the cabinet led by Prime Minister Sheikh Hasina

2h ago