খেলা

মেসিকে ভোট দেননি দাবি সুদান কোচের

ভার্জিল ফন ডাইক ও ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে পেছন ফেলে গত মৌসুমের ফিফার বর্ষসেরা 'দ্য বেস্ট' পুরস্কার জিতেছেন লিওনেল মেসি। আর এ পুরস্কার দেওয়ার পর চলছিল নানা আলোচনা- সমালোচনা। এবার ফিফার বিপক্ষে জালিয়াতির অভিযোগ তুলেছেন দুই জন। সুদানের কোচ ড্রাভকো লোগারুসিচের দাবি বদলে দেওয়া হয়েছে তার ভোট। আর নিকারাগুয়ার অধিনায়ক হুয়ান বারেরা জানিয়েছেন তিনি ভোটই দেননি।
messi
ফিফা দ্য বেস্ট মেন'স প্লেয়ার অ্যাওয়ার্ড হাতে মেসি। ছবি: ফিফা দ্য বেস্ট টুইটার

ভার্জিল ফন ডাইক ও ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে পেছন ফেলে গত মৌসুমের ফিফার বর্ষসেরা 'দ্য বেস্ট' পুরস্কার জিতেছেন লিওনেল মেসি। আর এ পুরস্কার দেওয়ার পর চলছিল নানা আলোচনা- সমালোচনা। এবার ফিফার বিপক্ষে জালিয়াতির অভিযোগ তুলেছেন দুই জন। সুদানের কোচ ড্রাভকো লোগারুসিচের দাবি বদলে দেওয়া হয়েছে তার ভোট। আর নিকারাগুয়ার অধিনায়ক হুয়ান বারেরা জানিয়েছেন তিনি ভোটই দেননি।

পুরস্কার দেওয়ার পর কে কাকে ভোট দিয়েছেন তা নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রকাশ করে ফিফা। এ নিয়ে আলোচনা চলে সামাজিক মাধ্যমেও। তেমনি সুদানের কোচের দেওয়া ভোট নিয়েও নিজ দেশে নানা সমালোচনা চলে। বিশেষ করে আফ্রিকান প্রতিনিধিদের রেখে মেসি-ডাইকদের ভোট দেওয়ায় সমালোচনায় পড়েন অনেক ভক্তদের। এরপরই বিষয়টি চোখে পড়ে ড্রাভকো লোগারুসিচের।

পরে সামাজিক মাধ্যম টুইটারে তিনি জানান, মেসি নয়, মোহাম্মদ সালাহকেই ভোট দিয়েছিলেন। আর তার পক্ষে একটি প্রমাণও দেন তিনি। যে ফরমে পছন্দের প্রতিযোগীকে ক্রস চিহ্ন দিয়ে ভোট দিয়েছিলেন, তার ছবিও আপলোড করেন। নাইরোবি নিউজকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ক্ষোভও ঝেড়েছেন তিনি, ‘আমি প্রথম স্থানে সালাহকে ভোট দিয়েছি, দুইয়ে সাদিও মানে এবং তিনে কিলিয়ান এমবাপেকে। এর পর ভোটের আবেদনপত্রের একটি ছবিও তুলে রেখেছিলাম। কিন্তু এরপর কীভাবে এমনটা হয়েছে জানি না।’

চূড়ান্ত ফল প্রকাশের পর দেখা গেছে, লোগারুসিচের প্রথম পছন্দ ছিলেন লিওনেল মেসি। দ্বিতীয়তে ভার্জিল ফন ডাইক ও তৃতীয়তে সাদিও মানে। লোগারুসিচের মতো অভিযোগ তুলেছেন নিকারাগুয়ার অধিনায়কও। সামাজিক মাধ্যম টুইটারে তিনি জানিয়েছেন, 'ফিফা দ্য ব্যাট পুরষ্কারের জন্য আমি কোন ভোট দেইনি। যদি কোন তথ্য থেকে থাকে তাহলে সেটা মিথ্যা, ধন্যবাদ।'

ধারণা করা হয় মোহাম্মদ সালাহ এবার ফিফা বর্ষসেরার অন্যতম দাবীদার ছিলেন। কিন্তু মিশরের কোচ শাকি গারিব ভোটই দিতে পারেননি। পারেননি মিসরের অধিনায়ক আহমদ এল মোহাম্মদিও। নির্দিষ্ট সময়ের পর তারা ভোট দিয়েছেন বলে তাদের ভোট বাতিল করেছে ফিফা। কিন্তু ১৫ আগস্ট ভোট দিয়েছেন দাবী করে আফ্রিকানিউজকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে অধিনায়ক বলেছেন, 'ফিফাকে জিজ্ঞাসা করেন আমার ভোট কেন নিবন্ধিত হয়নি।' তবে তাদের অভিযোগের ভিত্তিতে ফিফার তরফ থেকে এখনও কোন ধরণের তথ্য পাওয়া যায়নি। 

৪৬ পয়েন্ট নিয়ে এবার ফিফার বর্ষসেরা হয়েছেন মেসি। ৩৮ র‌্যাঙ্কিং পয়েন্ট নিয়ে তার পড়েই আছেন লিভারপুলের ডাচ তারকা ডিফেন্ডার ভার্জিল ফন ডাইক। তৃতীয় স্থানে থাকা রোনালদোর র‌্যাঙ্কিং পয়েন্ট ৩৬।

Comments

The Daily Star  | English
Deposits of Bangladeshi banks, nationals in Swiss banks hit lowest level ever in 2023

Deposits of Bangladeshi banks, nationals in Swiss banks hit lowest level ever

It declined 68% year-on-year to 17.71 million Swiss francs in 2023

4h ago