সাজা মেনে বিসিবিতে সাকিবের আধঘন্টা

আইসিসি সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টাতেই জানিয়ে দেয় সাকিব আল হাসানের নিষিদ্ধের খবর। সেই খবরেই ছিল তার সাজা মেনে নেওয়ার বিবৃতিও। দেড়ঘন্টা পর সাকিব সশরীরে হাজির মিরপুরে। উপস্থিত শত ক্যামেরার সামনে বোর্ড প্রধানের সঙ্গে বিষণ্ণ চেহারায় দাঁড়ালেন, চোখের কোনেও যেন কিছুটা জলের আনাগোনা। বাইরে তখন শ’ খানেক ভক্ত তার হয়ে তুলেছেন স্লোগান।
Shakib Al Hasan
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

আইসিসি সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টাতেই জানিয়ে দেয় সাকিব আল হাসানের নিষিদ্ধের খবর। সেই খবরেই ছিল তার সাজা মেনে নেওয়ার বিবৃতিও। দেড়ঘন্টা পর সাকিব সশরীরে হাজির মিরপুরে। উপস্থিত শত ক্যামেরার সামনে বোর্ড প্রধানের সঙ্গে বিষণ্ণ চেহারায় দাঁড়ালেন, চোখের কোনেও যেন কিছুটা জলের আনাগোনা। বাইরে তখন শ’ খানেক ভক্ত তার হয়ে তুলেছেন স্লোগান।

গণমাধ্যমের তুমুল আগ্রহের মাঝে বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান আর শীর্ষ কর্তাদের পাশে দাঁড়িয়ে লিখিত বিবৃতি পাঠ করলেন। যা আইসিসির খবরেই জুড়ে দেওয়া ছিল, ‘যে খেলাটি আমি ভালোবাসি, সেটা থেকে নিষিদ্ধ হওয়ায় আমি সত্যিই ভীষণভাবে দুঃখিত। কিন্তু প্রস্তাবের (জুয়াড়িদের) বিষয়টি না জানানোর কারণে আমাকে যে শাস্তি দেওয়া হয়েছে, তা আমি পুরোপুরি মেনে নিচ্ছি। দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আইসিসির দুর্নীতিবিরোধী ইউনিট (আকসু) খেলোয়াড়দের ভূমিকার ওপর নির্ভর করে থাকে এবং এক্ষেত্রে আমি আমার দায়িত্ব ঠিকভাবে পালন করিনি।’

‘বিশ্বের অধিকাংশ খেলোয়াড় ও ভক্তদের মতো আমিও চাই, ক্রিকেটকে দুর্নীতিমুক্ত একটি খেলায় পরিণত হোক। আমি আইসিসি আকসুকে তাদের শিক্ষা কার্যক্রমে (দুর্নীতির বিরুদ্ধে) সাহায্য করতে মুখিয়ে আছি। আমি নিশ্চিত করতে চাই যেন তরুণ খেলোয়াড়রা আমার মতো ভুল না করে।’

এরপর সাকিব যোগ করেন আরও কিছু কথা। এইরকম সংকটময় সময়ে গণমাধ্যম, সমর্থক ও বিসিবিকে ধন্যবাদ দিয়ে সমর্থন চান এই ক্রিকেটার,  ‘আমি আরও একটা কথা বলতে চাই। আপনারা যারা গণমাধ্যম আছেন, সমর্থকরা আছেন এবং বিসিবি যারা সব সময় আমার ভালো ও খারাপ সময়ে সমর্থন করে এসেছে আমি আশা করি এই সমর্থনটা যদি থাকে তাহলে আরও শক্তভাবে ফিরে আসতে পারব এবং আরও ভালোভাবে দায়িত্ব পালন করব।’

এর আগে মিনিট পনেরো বোর্ড পরিচালকদের সঙ্গে কথা হয়েছে তার। সংবাদ সম্মেলনে নিজের বক্তব্য দেওয়ার পর সাকিবের দিকে উড়ে গেল প্রশ্ন। কিন্তু বিসিবি প্রধান জানালেন, আজ কোন প্রশ্নোত্তর পর্ব নয়। বোর্ডের পক্ষ থেকে তিনি জানালেন তারা এই ঘটনায় কতটা শকড।

সব শেষে বেরিয়ে যাওয়ার সময় সাকিবের মুখে পাওয়া গেল কিছুটা হাসি।

Comments

The Daily Star  | English

Sea-level rise in Bangladesh: Faster than global average

Bangladesh is experiencing faster sea-level rise than the global average of 3.42mm a year, which will impact food production and livelihoods even more than previously thought, government studies have found.

1h ago