নারায়ণগঞ্জে বৃদ্ধা মাকে পেটানোয় মসজিদের ইমাম আটক

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলায় ষাটোর্ধ্ব বৃদ্ধা মাকে পিটিয়ে আহত করার ঘটনায় ইমাম হোসাইন (৩০) নামে মসজিদের এক ইমামকে আটক করেছে পুলিশ।
আড়াইহাজার উপজেলার ছোট ফাউশা গ্রাম থেকে ইমাম হোসাইন নামে মসজিদের ইমামকে আটক করে পুলিশ। ছবি: সংগৃহীত

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলায় ষাটোর্ধ্ব বৃদ্ধা মাকে পিটিয়ে আহত করার ঘটনায় ইমাম হোসাইন (৩০) নামে মসজিদের এক ইমামকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার সকালে আড়াইহাজার উপজেলার ছোট ফাউশা গ্রাম থেকে তাকে আটক করা হয়। পরে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ভ্রাম্যমাণ আদালতে পাঠানো হয়।

আটক ইমাম হোসাইন সোনারগাঁও উপজেলার জামপুর এলাকার মৃত তোতা মিয়ার ছেলে। সে আড়াইহাজার উপজেলার কুটি বাড়ী জামে মসজিদের ইমাম।

সোনারগাঁয়ের তালতলা তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক আহসান উল্লাহ জানান, প্রায় এক মাস আগে ইমাম হোসাইন তার বৃদ্ধা মা ফাতেমা বেগমকে মারধর করে সম্পত্তি লিখে নিয়ে যায়। এর প্রেক্ষিতে ওই ফাতেমা বেগম আদালতে আবেদন করেন। ওই আবেদনের প্রেক্ষিতে আদালত থেকে পাঠানো সমন শনিবার ইমাম হোসাইনের কাছে পৌঁছায়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে প্রথমে বৃদ্ধা মায়ের ভাতের থালা ফেলে দেয় এবং লাঠি দিয়ে পিটিয়ে আহত করে ইমাম হোসাইন। পরে স্থানীয়রা ফাতেমা বেগমকে উদ্ধার করে উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে কিছুটা সুস্থ হওয়ার পর রাতে থানায় এসে নিজে বাদী হয়ে ছেলের বিরুদ্ধে হত্যার উদ্দেশ্যে পিটিয়ে গুরুত্বর জখম করার লিখিত অভিযোগ দেন। অভিযোগের ভিত্তিতে আটক করা হয় ছেলেকে।

তিনি বলেন, “এ ধরনের ঘটনায় মামলা করে আদালতে পাঠানো হলেও আসামি দ্রুত জামিন পেয়ে যায়। সেজন্য কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে পাঠানো হয়েছে। ম্যাজিস্ট্রেট যে আদেশ দিবেন সেই ভাবে পরবর্তীতে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।”

সোনারগাঁও উপজেলা পরিষদের নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট অঞ্জন কুমার সরকার বলেন, আমি একটি মিটিংয়ে আছি। মিটিং শেষে গিয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

Comments

The Daily Star  | English

Ctg’s Tekpara slum fire guts 80 shanties

At least 80 shanties were burned down in a fire that broke out at a slum at Tekpara in Firingibazar of Chattogram city this afternoon

41m ago