খেলা

কলকাতা টেস্ট থেকে ছিটকে গেলেন সাইফ

আগের টেস্টে বাংলাদেশের দুই ওপেনারই হয়েছেন ব্যর্থ। সাদমান ইসলাম ও ইমরুল কায়েস করেছেন হতাশ। তাই কলকাতায় এক দিন পরই শুরু হতে যাওয়া ঐতিহাসিক দিবা-রাত্রির টেস্টের জন্য বাংলাদেশ দলের নির্বাচকদের ভাবনায় ছিলেন সাইফ হাসান। তবে আন্তর্জাতিক অভিষেকের অপেক্ষায় থাকা এই তরুণ ডানহাতি ব্যাটসম্যান হাতে পাওয়া চোট থেকে এখনও সেরে ওঠেননি। ফলে ইডেন গার্ডেন্সে খেলা হচ্ছে না তার।
saif hasan
ফাইল ছবি: একুশ তাপাদার

আগের টেস্টে বাংলাদেশের দুই ওপেনারই হয়েছেন ব্যর্থ। সাদমান ইসলাম ও ইমরুল কায়েস করেছেন হতাশ। তাই কলকাতায় এক দিন পরই শুরু হতে যাওয়া ঐতিহাসিক দিবা-রাত্রির টেস্টের জন্য বাংলাদেশ দলের নির্বাচকদের ভাবনায় ছিলেন সাইফ হাসান। তবে আন্তর্জাতিক অভিষেকের অপেক্ষায় থাকা এই তরুণ ডানহাতি ব্যাটসম্যান হাতে পাওয়া চোট থেকে এখনও সেরে ওঠেননি। ফলে ইডেন গার্ডেন্সে খেলা হচ্ছে না তার।

বুধবার (২০ নভেম্বর) বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) এক বিবৃতিতে কলকাতা টেস্টে সাইফকে না পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। চোট নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর মেডিক্যাল টিম জানিয়েছে, পুরো ফিটনেস ফিরে পাওয়ার জন্য তার আরও সময় দরকার। তাই তাকে বিশ্রাম দেওয়া হচ্ছে।

ইন্দোরে ভারতের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টেস্টে বাংলাদেশের একাদশে ছিলেন না ২১ বছর বয়সী সাইফ। গোলাপি বলের টেস্টকে সামনে রেখে চালিয়ে গেছেন অনুশীলন। বদলি খেলোয়াড় হিসেবে করেছেন ফিল্ডিংও। সেসময়ই ডান হাতে চোট পান তিনি। তৈরি হয় ক্ষতও। এরপরও হাতে ব্যান্ডেজ করে ইন্দোরে থাকতেই ব্যাটিং অনুশীলন করেন তিনি।

ইন্দোর থেকে আগের দিন কলকাতায় পৌঁছেছে বাংলাদেশ দল। আজ থেকে শুরু করেছে অনুশীলন। সকালে মাঠে এসেছিলেন সাইফও। কিন্তু অনুশীলন না করে তিনি ফিরে যান সাজঘরে। কারণ তার হাতের ব্যথা কিছুটা বেড়েছে। ফলে কলকাতা টেস্টে তাকে পাওয়া নিয়ে যাবে কিনা তা নিয়ে সংশয় তৈরি হয়। এরপর বিসিবির বিবৃতিতে তার ছিটকে যাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে।

সাইফ মাঠ ছেড়ে যাওয়ার পর বাংলাদেশ দলের ফিজিও জুলিয়ান ক্যালেফাতোর কাছে জানতে চাওয়া হয়েছিল তার চোটের মাত্রা সম্পর্কে। বিস্তারিত না জানালেও ইতালিয়ান বংশোদ্ভূত এই দক্ষিণ আফ্রিকান তখন বলেছিলেন, ‘ওর (সাইফের) হাতের ঘা এখনও শুকায়নি।’

কোনো সংস্করণেরই জাতীয় দলের জার্সি এখনও গায়ে তোলার সুযোগ হয়নি সাম্প্রতিক সময়ে দারুণ ছন্দে থাকা সাইফের। বাংলাদেশ টেস্ট স্কোয়াডে প্রথমবারের মতো জায়গা করে নেওয়ার আগে জাতীয় লিগের তিন ম্যাচের চার ইনিংসে ৩২১ রান করেছিলেন তিনি। এর মধ্যে ঢাকা বিভাগের হয়ে রংপুর বিভাগের বিপক্ষে অপরাজিত ২২০ রানের একটি দুর্দান্ত ইনিংসও ছিল।

তার আগে গেল অক্টোবরে বাংলাদেশ ‘এ’ দলের হয়ে শ্রীলঙ্কা সফরেও নজর কেড়েছিলেন সাইফ। তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে তার সেঞ্চুরিতে শ্রীলঙ্কা ‘এ’ দলকে হারিয়ে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জিতেছিল বাংলাদেশ।

Comments

The Daily Star  | English
Bank mergers in Bangladesh

Bank mergers: All dimensions must be considered

In general, five issues need to be borne in mind when it comes to bank mergers in Bangladesh.

9h ago