শীর্ষ খবর

প্রধানমন্ত্রীর কাছে ত্বকী হত্যার বিচার দাবি আইভীর

দীর্ঘ সাত বছর পরও ত্বকী হত্যার বিচার না হওয়ায় ক্ষোভ জানিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশেনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী।
selina hayat ivy
সেলিনা হায়াৎ আইভী। স্টার ফাইল ছবি

দীর্ঘ সাত বছর পরও ত্বকী হত্যার বিচার না হওয়ায় ক্ষোভ জানিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশেনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী।

তিনি বলেন, “আমরা বিভিন্ন সময় বিভিন্নভাবে রাষ্ট্রের কাছে দাবি জানিয়েছি। কিন্তু, কী যেন অজানা কারণে এ বিচারটি হচ্ছে না। অনেক হত্যার বিচার হচ্ছে কিন্তু ত্বকী হত্যার হচ্ছে না”।

গতকাল (৮ জানুয়ারি) ডিআইটি এলাকায় আলী আহাম্মদ চুনকা পাঠাগার ও নগর মিলনায়তনের সামনে তানভীর মুহাম্মদ ত্বকী হত্যার বিচার দাবিতে নারায়ণগঞ্জ সাংস্কৃতিক জোটের আয়োজিত মোমবাতি প্রজ্জ্বালন কর্মসূচিতে তিনি এসব কথা বলেন।

আইভী বলেন “যেখানে র‌্যাবের তদন্তে ১১ জনের নাম বেরিয়ে এসেছে, তারপরও সেই বিচার কেন হচ্ছে না তা আমার বোধগম্য নয়।”

প্রধানমন্ত্রীর কাছে ত্বকী হত্যার বিচার চেয়ে আইভী আরও বলেন, “বিচারের সংস্কৃতি যদি নারায়ণগঞ্জে চালু না হয় তাহলে এরকম হত্যাকাণ্ড- আরো ঘটবে। সেটা নিশ্চয়ই আমাদের কারোরই কাম্য নয়। আমরা আবারো অনুরোধ করব রাষ্ট্রের কাছে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে, মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জের মানুষকে আশ্বস্ত করা হোক। ত্বকী হত্যাকারীদের বিচার করা হোক”।

কর্মসূচিতে আরো উপস্থিত ছিলেন সন্ত্রাস নির্মূল ত্বকী মঞ্চের আহ্বায়ক ও ত্বকীর বাবা রফিউর রাব্বি, ত্বকী মঞ্চের সদস্য সচিব সাংবাদিক হালিম আজাদ, নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহবুবুর রহমান মাসুমসহ অনেকে।

২০১৩ সালের ৬ মার্চ শহরের পুরান কোর্ট এলাকা থেকে অপহৃত হয় স্কুল শিক্ষার্থী ত্বকী। পরদিন শীতলক্ষ্যা নদী থেকে উদ্ধার করা হয় তার মরদেহ। ত্বকীর বাবা রফিউর রাব্বি বাদী হয়ে ওইদিনই নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় হত্যা মামলা করেন। তবে মামলার আট আসামিই পলাতক। জড়িত সন্দেহে পাঁচ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে যাদের মধ্যে ইউসুফ হোসেন লিটন ও সুলতান শওকত ভ্রমর স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। তবে  হত্যাকাণ্ডের ছয় বছর পার হলেও এখনও পর্যন্ত এ মামলার অভিযোগপত্র দেয়া হয়নি।

Comments

The Daily Star  | English

The cost-of-living crisis prolongs for wage workers

The cost-of-living crisis in Bangladesh appears to have caused more trouble for daily workers as their wage growth has been lower than the inflation rate for more than two years.

1h ago