অদেখা নায়কদের ধন্যবাদ জানালেন মাশরাফি

বিশ্ব জয় করে ঘরে ফিরেছেন অনূর্ধ্ব-১৯ দলের খেলোয়াড়রা। আগের দিন তাদের রীতিমতো বীরোচিত সম্মান দিয়ে অভ্যর্থনা জানিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। গত দুই বছর ধরে তাদের গড়তে অনেক শ্রমই দিয়েছে দেশের ক্রীড়া সংস্থাটি। কিন্তু তাদের আগেও এ খেলোয়াড়দের উঠে সাহায্য করেছেন অনেকেই। যারা রয়ে গেছেন আড়ালে। বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে সংস্করণের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা মনে করলেন তাদের। ধন্যবাদও জানাতে ভুল করেননি অধিনায়ক।
Mashrafe Mortaza
ফাইল ছবি: ফিরোজ আহমেদ

বিশ্বজয় করে ঘরে ফিরেছেন অনূর্ধ্ব-১৯ দলের খেলোয়াড়রা। আগের দিন তাদের রীতিমতো বীরোচিত সম্মান দিয়ে অভ্যর্থনা জানিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। গত দুই বছর ধরে তাদের গড়তে অনেক শ্রমই দিয়েছে তারা। কিন্তু তাদের আগেও যুবাদের উঠে আসাতে সাহায্য করেছেন অনেকেই। যারা রয়ে গেছেন পর্দার আড়ালে। বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে সংস্করণের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা স্মরণ করলেন তাদের। অদেখা নায়কদের ধন্যবাদ জানাতেও ভুল করেননি তিনি।

মাশরাফি তার নিজ এলাকা নড়াইলের স্থানীয় কিছু কোচদের স্মরণ করেছেন। কারণ যুব বিশ্বকাপ জয়ী খেলোয়াড়দের একজন, অভিষেক দাস উঠে এসেছেন তার এলাকা থেকেই। ভারতের বিপক্ষে ফাইনাল জয়ের অন্যতম নায়কও এ তরুণ। ভারতকে ১৭৭ রানে গুটিয়ে দেওয়ার মূল কারিগরই ছিলেন তিনি। ভারতীয় শিবিরে আঘাতের শুরুটা করেছিলেন তিনি। একাই তুলে নিয়েছিলেন ৩ উইকেট। অভিষেকের সম্পর্কে খুব ভালো করেই জানেন মাশরাফি, জানেন অভিষেককে এই পর্যায়ে নিয়ে আসতে স্থানীয় কোচদের ভূমিকা।

তাদেরই একজন নড়াইলের স্থানীয় বেসিক একাডেমির কোচ সৈয়দ মঞ্জুর তৌহিদ তুহিন। স্থানীয় খেলোয়াড়দের ক্রিকেটের হাতেখড়ি দিয়ে থাকেন তিনি। অভিষেকের হাতেখড়িও দিয়েছিলেন তিনি। আর নড়াইলের আতাউর রহমান ক্রিকেট একাডেমির কোচ সঞ্জয় বিশ্বাস সাজু করেছেন পরবর্তী পরিচর্যা। এরপর নড়াইল জেলাভিত্তিক কোচ ইমরুলও সবশেষ পরিচর্যার পর ডানহাতি পেসারকে এনে দিয়েছেন বিসিবির তত্ত্বাবধানে। তাতেই অভিষেকের ‘অভিষেক’ হয়ে ওঠা হয়েছে।

মাশরাফি নিজ জেলার কোচদের অবদানের কথা স্মরণ করে যেন বিশ্বজয়ী সকল তরুণদের গড়ার পেছনের কারিগরদের সম্মান জানালেন। বৃহস্পতিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তাদেরকে ধন্যবাদ জানিয়ে অভিজ্ঞ পেসার লিখেছেন, ‘একজন করে আকবর, তামিম, ইমন, রকিবুল, শরিফুল, অভিষেক গড়ে তুলতে তাদের পরিবারের সঙ্গে আরও অনেকের আত্মত্যাগ জড়িয়ে থাকে। অভিষেক বাড়ি ফিরেছে বাংলাদেশকে গৌরবান্বিত করে, বাড়ি ফিরেছে নড়াইলবাসীকে গৌরবান্বিত করে। ছুটে চলো তোমরা অবারিত, দেশকে নিয়ে যাও অনন্য উচ্চতায়। তুহিন কাকা, সঞ্জিব বিশ্বাস সাজু, ইমরুল- ধন্যবাদ আপনাদের। আপনাদের জন্য আজ এত স্বপ্ন দেখে সবাই। আমার চোখে আপনারা এ জাতির অদেখা নায়ক। সত্যি বলছি, আমি এটাই মনে করি।’

Comments

The Daily Star  | English

Hiring begins with bribery

UN independent experts say Bangladeshi workers pay up to 8 times for migration alone due to corruption of Malaysia ministries, Bangladesh mission and syndicates

33m ago