ভালো শুরুর পর তামিমের বিদায়

বাংলাদেশের দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও লিটন দাস বেশ ভালো সূচনা আনলেন। ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন আরও ভালো কিছুর। তবে বল হাতেই নিয়েই ওপেনিং জুটি ভেঙেছেন অভিষিক্ত জিম্বাবুইয়ান অলরাউন্ডার ওয়েসলি মাধেভেরে। তুলে নিয়েছেন তামিমকে। সেট হয়েও ইনিংস লম্বা করতে না পারার আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে বাঁহাতি ওপেনারকে।
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

বাংলাদেশের দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও লিটন দাস বেশ ভালো সূচনা আনলেন। ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন আরও ভালো কিছুর। তবে বল হাতেই নিয়েই ওপেনিং জুটি ভেঙেছেন অভিষিক্ত জিম্বাবুইয়ান অলরাউন্ডার ওয়েসলি মাধেভেরে। তুলে নিয়েছেন তামিমকে। সেট হয়েও ইনিংস লম্বা করতে না পারার আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে বাঁহাতি ওপেনারকে।

উইকেট না হারালেও শুরুতে রানের গতি সে অর্থে সচল থাকেনি। পাওয়ার প্লেতে আসে মাত্র ৪৪ রান। মূলত ওপেনার তামিম বেশ ধীরে খেলেছেন। এ সময়ে ৩১ বলে তামিম রান করেন ১৫। কোনো চার মারতে পারেননি। অন্যদিকে, আরেক ওপেনার লিটন অবশ্য চালিয়ে খেলে এ সময়ে ২৯ বলে ২৭ রান করেন। মারেন ৫টি বাউন্ডারি।

তবে পাওয়ার প্লের পর খোলস ভাঙার ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন তামিম। পরপর দুই ওভারে দুটি বাউন্ডারি মারেন। কিন্তু এর পরের ওভারে মাধেভেরের বলে পড়েন এলবিডব্লিউর ফাঁদে। রিভিউ নিয়েছিলেন। কিন্তু লাভ হয়নি। নষ্ট হয়েছে একমাত্র রিভিউটি। ব্যক্তিগত ২৪ রানে সাজঘরে ফিরতে হয় তামিমকে। এ রান কতে ৪১টি বল খেলেন তিনি। লিটনের সঙ্গে গড়েন ৬০ রানের জুটি।

অবশ্য কার্ল মুম্বার করা দশম ওভারের শেষ বলেই আউট হতে পারতেন তামিম। লেগ স্টাম্পের বাইরে রাখা বলে ফ্লিক করতে গেলে ব্যাটের কানায় লেগেছিল। স্টাম্পের পেছনে ঝাঁপিয়ে পড়েও সে ক্যাচ তালুবন্দি করতে পারেননি জিম্বাবুয়ের উইকেটরক্ষক রিচমন্ড মুটুমবামি।

রবিবার (১ মার্চ) সিলেটে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে টস জিতে ব্যাটিং নিয়েছেন বাংলাদেশ দলে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। পিচ রিপোর্টে জানানো হয়েছে, উইকেট ব্যাটিংয়ে জন্য উপযোগী। যদিও সামান্য ঘাস রয়েছে। তবে সবমিলিয়ে উইকেট ব্যাটসম্যানদের জন্য অনুকূলে।

এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত, বাংলাদেশের সংগ্রহ ১৫ ওভার শেষে ১ উইকেটে ৬৭ রান। লিটনের সংগ্রহ ৩৮ বলে ৩৭ রান। তার সঙ্গী হিসেবে নতুন ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্ত ব্যাট করছেন ৩ রানে।

Comments

The Daily Star  | English

Cyclone Remal may make landfall anytime between evening and midnight

Rain with gusty winds hit coastal areas as a peripheral effect of the severe cyclone

1h ago