কোহলির রাজত্ব সরিয়ে উইজডেনের সেরা বেন স্টোকস

গত তিন বছর টানা সেরা হওয়া ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলির মুকুট হাতছাড়া হলো।
Ben Stokes
ছবি: রয়টার্স

অবিশ্বাস্য নৈপুণ্যে ইংল্যান্ডকে বিশ্বকাপ জেতানো, পরে অ্যাশেজে অতিমানবীয় এক ইনিংস। ২০১৯ সালে বেন স্টোকস সাফল্যের বিচারে সবাইকে ছাপিয়ে ছিলেন চূড়ায়। অনুমিতভাবেই উইজডেনের ‘ওয়ার্ল্ড ক্রিকেটার অব দ্য ইয়ার’ মনোনীত হয়েছেন তিনিই। এতে করে গত তিন বছর টানা সেরা হওয়া ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলির মুকুট হাতছাড়া হলো।

বুধবার ক্রিকেটের বাইবেলখ্যাত উইজডেন ক্রিকেটার্স অ্যালমানাকের ১৫৭তম সংস্করণ প্রকাশিত হয়েছে। তাতে মেয়েদের মধ্যে সেরা হয়েছেন অজি অলরাউন্ডার এলিস পেরি। ইংল্যান্ডের গ্রীষ্মকালীন মৌসুম ও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সাফল্য নিয়ে যাচাই-বাছাই করে প্রতি বছর দেওয়া হয় এই পুরস্কার।

২০১৯ সালের ছেলে-মেয়ে মিলিয়ে সেরা পাঁচ ক্রিকেটারের তালিকাতেও জায়গা পেয়েছেন পেরি। বাকি চারজন হলেন- জোফরা আর্চার (ইংল্যান্ড), প্যাট কামিন্স (অস্ট্রেলিয়া), সাইমন হারমার (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও মারনাস লাবুশেন (অস্ট্রেলিয়া)।

গত জুলাইয়ে বিশ্বকাপের ফাইনালে চোখ ধাঁধানো ব্যাট করে ইংল্যান্ডকে বিশ্বকাপ পাইয়ে দেন স্টোকস। পুরো আসর জুড়ে দারুণ খেলে হন টুর্নামেন্ট সেরাও। পরে অ্যাশেজে হেডিংলি টেস্টে অবিশ্বাস্য রান তাড়ায় অতিমানবীয় ইনিংস খেলে জেতান ইংল্যান্ডকে। অ্যাশেজেও সেরা হন স্টোকস।

উইজডেন সম্পাদক লরেন্স বুথ সেই স্মরণীয় পারফরম্যান্সের কথাই মনে করিয়ে দিয়েছেন, ‘স্টোকস গত গ্রীষ্মে এক জীবনের সব খেলাই যেন খেলে দিয়েছে। চোখ ধাঁধানো নৈপুণ্য আর ভাগ্যের সহায়তা মিলিয়ে ফাইনালে আলো ছড়িয়ে বিশ্বকাপ জিতেছে। এরপরে অ্যাশেজে অসাধারণ দুই ইনিংস খেলেছে।’

Comments

The Daily Star  | English

Trees are Dhaka’s saviours

Things seem dire as people brace for the imminent fight against heat waves and air pollution.

4h ago