সরকারি চাল উত্তোলন ও আত্মসাতের অভিযোগ, ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে আদালতের মামলা

সরকারি চাল উত্তোলন ও আত্মসাতের অভিযোগে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ১৪ নম্বর গোস্বামী দুর্গাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দবির উদ্দিন বিশ্বাসের বিরুদ্ধে স্বপ্রণোদিত হয়ে মামলা করেছেন এক আদালত।
Kushtia-1.jpg
ছবি: স্টার অনলাইন গ্রাফিক্স

সরকারি চাল উত্তোলন ও আত্মসাতের অভিযোগে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ১৪ নম্বর গোস্বামী দুর্গাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দবির উদ্দিন বিশ্বাসের বিরুদ্ধে স্বপ্রণোদিত হয়ে মামলা করেছেন এক আদালত।

এর আগে, এ বিষয়ে সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ও উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার সমন্বয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) জোবায়ের হোসেন চৌধুরী।

ইউএনও জানান, অভিযোগের তদন্ত চলছে।

গত ১৮ এপ্রিল কুষ্টিয়ার চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সেলিনা খাতুন কর্তৃক ইস্যুকৃত ক্রিমিনাল মিসকেস নম্বর ০১/২০২০ ফৌ:কা:বি: ১৯০ (১)(সি) ধারায় আমলযোগ্য মামলার আদেশের কপি সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বরাবর প্রেরণ করা হয়েছে বলে আদালত সূত্র নিশ্চিত করেছেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়, চেয়ারম্যান দবির উদ্দিন বিশ্বাস তার সহযোগীদের যোগসাজশে গত চার বছর ধরে দুস্থদের জন্য সরকার নির্ধারিত খাদ্য সহায়তা প্রকল্পের ১০টাকা কেজি দরের চাল উত্তোলন ও তা তালিকাভুক্ত দুস্থদের না দিয়ে আত্মসাৎ করে আসছেন।

এমন সংবাদ স্থানীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে তা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে যায়। বিষয়টি পরে আদালতরে দৃষ্টিগোচর হয়।

সেই সংবাদে বলা হয়, করোনাভাইরাস দুর্যোগে লকডাউনের মধ্যে কর্মহীন ও দরিদ্র জনগোষ্ঠীর খাদ্য সহায়তায় সরকারি উদ্যোগে গৃহীত খাদ্যবান্ধব কর্মসূচী বাস্তবায়ন হচ্ছে কী না, তা সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের পর্যক্ষেণকালে এই চাল আত্মসাতের বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।

আদালত জানিয়েছেন, উল্লেখিত সময়কালে চেয়ারম্যান দবির উদ্দিন বিশ্বাস ৮ শ কার্ডের অনুকূলে বরাদ্দকৃত প্রায় ৬ শ মেট্রিক টন সরকারি চাল আত্মসাৎ করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এটি একটি ফৌজদারি অপরাধ। আগামী ২ জুনের মধ্যে তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণসহ প্রতিবেদন দাখিলের জন্য কুষ্টিয়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেওয়া হলো।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত চেয়ারম্যান দবির উদ্দিন বিশ্বাস মুঠোফোনে দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘একটি মহল রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হয়ে সরকারি চাল আত্মসাৎ করেছি বলে মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন সংবাদ ছেপেছে। পরে তারাই আবার আমার কাছে এসে মীমাংসা করে গেছে। তবে আমার বিরুদ্ধে এ বিষয়ে আদালতে মামলা হয়েছে কী না, তা জানিনা।’

কুষ্টিয়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা জানান, সরকারি চাল আত্মসাতের দায়ে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণে ইস্যুকৃত আদালতের আদেশটি এখনও হাতে পাইনি। পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

The Daily Star  | English
Qatar emir’s visit to Bangladesh

Qatari Emir Al Thani arrives in Dhaka on a 2-day visit

Qatari Emir Sheikh Tamim Bin Hamad Al Thani arrived in Dhaka for a two-day visit today afternoon

44m ago