এক মাসের মধ্যে মত পাল্টালেন পেলে, বললেন মেসিই সেরা

মাসের চাকা ঘুরে শেষ হতে না হতেই তিনটি বিশ্বকাপ জেতা সাবেক সেলেসাও স্ট্রাইকার পাল্টে ফেলেছেন মত। বর্তমান বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়ের প্রশ্নে পর্তুগালের ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে সরিয়ে এবারে তিনি বেছে নিয়েছেন আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসিকে।

মাসখানেক আগে নিজ দেশের ইউটিউব চ্যানেল পিলহাদোকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ফুটবল ইতিহাসের কিংবদন্তি ব্রাজিলিয়ান তারকা পেলে বলেছিলেন, ‘বর্তমানে বিশ্বের সেরা খেলোয়াড় হলো ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। আমার মনে হয়, সে-ই সেরা। কারণ সে অনেক বেশি ধারাবাহিকতা দেখিয়েছে। তবে অবশ্যই (লিওনেল) মেসিকে ভুলে যাওয়া চলবে না। কিন্তু সে স্ট্রাইকার নয়।’

কিন্তু মাসের চাকা ঘুরে শেষ হতে না হতেই তিনটি বিশ্বকাপ জেতা সাবেক সেলেসাও স্ট্রাইকার পাল্টে ফেলেছেন মত। বর্তমান বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়ের প্রশ্নে পর্তুগালের ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে সরিয়ে এবারে তিনি বেছে নিয়েছেন আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসিকে, ‘(সেরার প্রশ্নের উত্তর দিতে গেলে) আমি লিও মেসির কথা ভাবি। সে দক্ষ খেলোয়াড়, গোল করায় সাহায্য করে, পাস দেয়, নিজে গোল করে, ভালো ড্রিবল করে।’

সম্ভব হলে ৩২ বছর বয়সী মেসির সঙ্গে একই দলে খেলার আগ্রহের কথাও ইতালিয়ান গণমাধ্যম গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্তকে জানিয়েছেন ৭৯ বছর বয়সী পেলে, ‘যদি আমরা একসঙ্গে একই দলে খেলতাম, তাহলে প্রতিপক্ষকে দুজন খেলোয়াড়কে নিয়ে ভাবতে হতো, একজনকে নিয়ে নয়। বর্তমানে মেসিই সবচেয়ে পরিপূর্ণ খেলোয়াড়।’

গেল বছর নভেম্বরেও এই ইতালিয়ান দৈনিকের কাছে ৩৫ বছর বয়সী জুভেন্টাস স্ট্রাইকার রোনালদোর চেয়ে মেসির প্রতি নিজের বাড়তি মুগ্ধতার কথা জানিয়েছিলেন পেলে। একসঙ্গে খেলার সুযোগ হলে কাকে সতীর্থ হিসেবে পছন্দ করতেন, এমন জিজ্ঞাসায় সেবারও বার্সেলোনা ফরোয়ার্ডের নাম বলেছিলেন তিনি।

সময়ের সেরা তো বটেই, গেল এক যুগ ধরে ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড়ের তকমা নিয়েও লড়াই চলছে রোনালদো ও মেসির মধ্যে। আর্জেন্টিনার হয়ে কোনো জাতীয় শিরোপা না থাকলেও রেকর্ড ছয়টি ব্যালন ডি’অর জিতেছেন মেসি। অন্যদিকে, পর্তুগালের হয়ে দুটি আন্তর্জাতিক শিরোপা জেতা রোনালদো পাঁচবার স্বাদ নিয়েছেন ব্যালন ডি’অরের। ক্যারিয়ারে সবমিলিয়ে এক হাজার ম্যাচ খেলে ৭২৫ গোল করেছেন তিনি। তবে মেসির ম্যাচপ্রতি গোল গড় আরও বেশি। ৮৫৬ ম্যাচে তিনি লক্ষ্যভেদ করেছেন ৬৯৭ বার।

মেসি-রোনালদো মঞ্চে আবির্ভূত হওয়ার আগে সর্বকালের সেরা ফুটবলারের দ্বৈরথটা সীমাবদ্ধ ছিল পেলে ও আর্জেন্টিনার সাবেক তারকা দিয়েগো ম্যারাডোনার মধ্যে। সেরার প্রশ্নে এখনও অনেকে বেছে নেন পেলেকে, অনেকে আবার ম্যারাডোনাকে। তবে গেল মাসের সাক্ষাৎকারে নিজেকেই সেরা বলে ঘোষণা দিয়েছিলেন পেলে। আর কিংবদন্তিদের তালিকায় ম্যারাডোনার নাম উল্লেখ করাটা গিয়েছিলেন এড়িয়ে। এবারে অবশ্য প্রতিদ্বন্দ্বীকে অন্তর্ভুক্ত করেছেন তিনি।

তবে পেলের মতে, অতীতের তুলনায় বর্তমানে উঁচু মানের খেলোয়াড়ের সংখ্যা কম, ‘আগে ফুটবল ঐতিহ্যসম্পন্ন প্রতিটি দেশে অন্তত দুই-তিনজন দুর্দান্ত ফুটবলার পাওয়া যেত। ইউসেবিও, (আন্তোনিয়ো) সিমোস, (ইয়োহান) ক্রুইফ, (ফ্রাঞ্জ) বেকেনবাওয়ার, (দিয়েগো) ম্যারাডোনা, গারিঞ্চা, দিদি। কত জনের নাম বললাম? অনেক আছে। কিন্তু এখন সেরার কাতারে কেবল দুই বা তিনজন আছে। মেসি, রোনালদো, আর আমি বলব নেইমারের কথা, যদিও সে এখনও ব্রাজিলের বিশেষ কেউ হয়ে উঠতে পারেনি।’

Comments

The Daily Star  | English

Sajek accident: Death toll rises to 9

The death toll in the truck accident in Rangamati's Sajek increased to nine tonight

1h ago