অসুস্থতা নয়, সম্ভবত করোনা এড়াতে চাইছেন কিম: দ. কোরিয়া

উত্তর কোরিয়া বিষয়ক দক্ষিণ কোরিয়ার মন্ত্রী বলেছেন, অসুস্থতা নয়, সম্ভবত করোনাভাইরাস থেকে নিজেকে রক্ষার জন্য ১৫ এপ্রিলের অতি গুরুত্বপূর্ণ রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে অনুপস্থিত ছিলেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন।
Kim Jong Un-1.jpg
পিয়ংইয়ংয়ে সামরিক বাহিনীর এক বৈঠকে বক্তব্য রাখছেন কিম জং উন। ২৭ মার্চ ২০২০। ছবি: কেসিএনএ

উত্তর কোরিয়া বিষয়ক দক্ষিণ কোরিয়ার মন্ত্রী বলেছেন, অসুস্থতা নয়, সম্ভবত করোনাভাইরাস থেকে নিজেকে রক্ষার জন্য ১৫ এপ্রিলের অতি গুরুত্বপূর্ণ রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে অনুপস্থিত ছিলেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন।

রয়টার্স জানিয়েছে, ওইদিন কিমের পিতামহ ও উত্তর কোরিয়ার জাতির জনক কিম ইল সাংয়ের জন্মবার্ষিকী ছিল এবং দিনটিকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় জাকজমকভাবে পালন করা হয়। তবে ক্ষমতায় আসার পর এবারই প্রথম ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন না কিম। এর চার দিন আগে ক্ষমতাসীন ওয়ার্কার্স পার্টির পলিটব্যুরো সভায় সভাপতিত্ব করেছিলেন তিনি। এরপর থেকেই তার শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে জল্পনা ও পরবর্তীতে মৃত্যুর গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়ে।

তবে এ বিষয়ে প্রতিবেশী দক্ষিণ কোরিয়ার পক্ষ থেকে দৃঢ় সরকারি অবস্থানের কথা জানানো হয়। কিমের অসুস্থতা বা মৃত্যুর বিষয়ে উত্তর কোরিয়ায় কোনো সন্দেহজনক গতিবিধি নজরে আসেনি বলেও জানায় তারা।

উত্তর কোরিয়া বিষয়ক দক্ষিণ কোরিয়ার মন্ত্রী কিম ইয়ন-চুল নিজ দেশের সংসদ সদস্যদের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ‘উত্তর কোরিয়া জানিয়ে আসছে যে সেখানে করোনা সংক্রমণের কোনো তথ্য নেই। তবে করোনার প্রাদুর্ভাব মোকাবিলায় তারা কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছে। ফলে রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ অনুষ্ঠানে কিমের উপস্থিত না থাকাটা বিশেষত অস্বাভাবিক কিছু নয়।’

আজ মঙ্গলবার কিম ইয়ন-চুল সংসদ অধিবেশনে বলেন, ‘এটা সত্যি যে ক্ষমতাগ্রহণের পর কিম ইল সাংয়ের জন্মবার্ষিকী অনুষ্ঠানে কিম জং উন অনুপস্থিত ছিলেন, এমনটি কখনো হতে দেখা যায়নি। তবে করোনা সতর্কতায় এমন আরও অনেক অনুষ্ঠান ও আয়োজন সেদেশে স্থগিত করে দেওয়া হয়েছে।’

Comments

The Daily Star  | English

Personal data up for sale online!

Some government employees are selling citizens’ NID card and phone call details through hundreds of Facebook, Telegram, and WhatsApp groups, the National Telecommunication Monitoring Centre has found.

8h ago