১৫ মে থেকে শুরু হচ্ছে জার্মান বুন্ডেসলিগা!

প্রস্তুতি সব আগেই সারা। গত সপ্তাহ থেকে খেলোয়াড়রাও অনুশীলন করছেন নিয়মিত। অপেক্ষা ছিল সরকারী সিদ্ধান্তের। অবশেষে তাও মিলেছে। আগামী ১৫ মে থেকে ফের শুরু হতে যাচ্ছে জার্মান ফুটবল লিগ বুন্ডেসলিগা। এমন সংবাদই প্রকাশ করেছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। অথচ, জার্মান ফুটবল লিগ (ডিএফএল) কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে বুন্ডেসলিগা ও বুন্ডেসলিগা-২ এর ১০ জনের করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফলাফল পজিটিভ এসেছে।
ফাইল ছবি: এএফপি

প্রস্তুতি সব আগেই সারা। গত সপ্তাহ থেকে খেলোয়াড়রাও অনুশীলন করছেন নিয়মিত। অপেক্ষা ছিল সরকারী সিদ্ধান্তের। অবশেষে তাও মিলেছে। আগামী ১৫ মে থেকে ফের শুরু হতে যাচ্ছে জার্মান ফুটবল লিগ বুন্ডেসলিগা। এমন সংবাদই প্রকাশ করেছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। অথচ, জার্মান ফুটবল লিগ (ডিএফএল) কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে বুন্ডেসলিগা ও বুন্ডেসলিগা-২ এর ১০ জনের করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফলাফল পজিটিভ এসেছে।

সংবাদে জানানো হয়েছে, জার্মান চ্যান্সেলর আনহেলা মারকেল টেলিকনফারেন্সে স্টেট লিডারদের সঙ্গে আলোচনার পর আগামী ১৫ মে থেকে লিগ শুরুর অনুমতি দিয়েছেন। তবে বন্ধ দরজায় দর্শকশূন্য মাঠে হবে সবগুলো ম্যাচ এবং লিগ শুরুর আগে প্রত্যেক খেলোয়াড়-স্টাফদের করোনাভাইরাস পরীক্ষা বাধ্যতামূলক। কিন্তু এরমধ্যেই দুই বিভাগের ৩৬ ক্লাবের ১ হাজার ৭২৪ জনের পরীক্ষার পর ১০ জনের কোভিড-১৯ পজিটিভ ফলাফল এসেছে। তাদের ১৪ দিনের জন্য কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়েছে।

তবে ডিএফএল আগামী ৯ মে থেকে লিগ শুরুর সিদ্ধান্ত নিয়েছিল বলে সংবাদ প্রকাশ করেছিল জার্মান গণমাধ্যমগুলো। কিন্তু সরকারের পক্ষ থেকে ইতিবাচক সংকেত মিলেনি। গত সপ্তাহেই ডিএফএলের প্রধান নির্বাহী জানিয়েছিলেন, খেলোয়াড়, কোচিং স্টাফ, নিরাপত্তা কর্মী ও অন্যান্য যারা আছে সব মিলিয়ে স্টেডিয়ামে সর্বোচ্চ ৩৩০ জন গ্রহণ করা হবে। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে স্টেডিয়ামে তো বটেই বাইরেও কোনো সমর্থকদের উপস্থিতি মেনে নেওয়া হবে না।

সোমবার থেকেই ধীরে ধীরে জীবনযাত্রা স্বাভাবিক করতে লকডাউন শিথিল করার পদক্ষেপ নিয়েছে জার্মান সরকার। জার্মান ক্লাবগুলোও ছোট ছোট গ্রুপে বিভক্ত হয়ে গত সপ্তাহ থেকেই অনুশীলন শুরু করে দিয়েছে। লিগের পয়েন্ট টেবিলে বর্তমানে শীর্ষে আছে বায়ার্ন মিউনিখ। ২৫ ম্যাচে তাদের সংগ্রহ ৫৫ পয়েন্ট। ৪ পয়েন্ট কম নিয়ে তাদের পেছনে রয়েছে বুরুশিয়া ডর্টমুন্ড।

Comments

The Daily Star  | English

Govt may go for quota reforms

The government is considering a “logical reform” in the quota system in the public service, but it will not take any initiative to that end or give any assurances until the matter is resolved by the Supreme Court.

1d ago