লকডাউন নিশ্চিত করতে যশোরে ৩৫ চেকপোস্ট

যশোর শহর, শহরতলী ও জেলার প্রবেশদ্বারে প্রায় ৩৫টি স্থানে চেকপোস্ট বসিয়েছে পুলিশ।
ছবি: স্টার

যশোর শহর, শহরতলী ও জেলার প্রবেশদ্বারে প্রায় ৩৫টি স্থানে চেকপোস্ট বসিয়েছে পুলিশ।

করোনার প্রাদুর্ভাব কমাতে যশোর শহর ও জেলায় বাইরে থেকে কেউ যেন আসতে না পারেন সে জন্য এ চেকপোষ্ট বসানো হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার রাত থেকে আজ দুপুরে এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত এ আদেশ অমান্য করায় প্রায় ১০০ মামলা দেওয়া হয়েছে।

জনসাধারণকে অবাধ চলাচল থেকে বিরত রাখার জন্য যশোর শহরের চাঁচড়া, মুড়লি, মনিহার, খাজুরা বাসস্টান্ড, পালবাড়ি, আরবপুর ও দড়াটানা এবং যশোর-নড়াইল রোড, যশোর-খুলনা রোড, যশোর-সাতক্ষীরা রোডে প্রায় ৩৫টি স্থানে পুলিশ চেকপোষ্ট বসানো হয়েছে।

যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ গোলাম রব্বানী শেখ এসব চেকপোস্টের তদারকি করছেন।

তিনি বলেন, ‘যশোর শহর, শহরতলী ও জেলার সীমান্তবর্তী স্থানে চেকপোষ্ট বসিয়ে অবাধে যাতায়াত থেকে বিরত করানো হচ্ছে। অবাধ যাতায়াত করায় প্রায় ১০০টি মামলা দেওয়া হয়েছে।’

যশোর পুলিশ যশোরকে করোনামুক্ত করতে সরকারের নির্দেশনা বাস্তবায়ন করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছে বলেও জানান তিনি।

তিনি আরও বলেন, ‘খুব প্রয়োজন না হলে বাইরে বের না হয়ে সবাইকে ঘরে থাকতে বলা হচ্ছে৷’

Comments

The Daily Star  | English

Inadequate Fire Safety Measures: 3 out of 4 city markets risky

Three in four markets and shopping arcades in Dhaka city lack proper fire safety measures, according to a Fire Service and Civil Defence inspection report.

9h ago