করোনাভাইরাস

বিশ্বে মৃত্যু ৩ লাখ ৪৬ হাজার, যুক্তরাষ্ট্রে ৯৮ হাজারের বেশি

বিশ্বব্যাপী প্রতিনিয়তই বাড়ছে নতুন করোনাভাইরাস কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। ইতোমধ্যে ৩ লাখ ৪৬ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৫৫ লাখ। এ ছাড়া, সুস্থও হয়েছেন ২২ লাখের বেশি মানুষ।
চীনের একটি চেকপয়েন্টে নিরাপদ পোশাক পরে স্বেচ্ছাসেবীরা। ছবি: রয়টার্স

বিশ্বব্যাপী প্রতিনিয়তই বাড়ছে নতুন করোনাভাইরাস কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। ইতোমধ্যে ৩ লাখ ৪৬ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৫৫ লাখ। এ ছাড়া, সুস্থও হয়েছেন ২২ লাখের বেশি মানুষ।

আজ মঙ্গলবার জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির করোনাভাইরাস রিসোর্স সেন্টার এ তথ্য জানিয়েছে।

জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৪ লাখ ৯৭ হাজার ৫৩৮ জন এবং মারা গেছেন ৩ লাখ ৪৬ হাজার ২৬৯ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ২২ লাখ ৩২ হাজার ৫৯৩ জন।

করোনাভাইরাসে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যু যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছেন ১৬ লাখ ৬২ হাজার ৭৬৮ জন এবং মারা গেছেন ৯৮ হাজার ২২৩ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ৩ লাখ ৭৯ হাজার ১৫৭ জন।

যুক্তরাষ্ট্রের পর সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত রয়েছে দক্ষিণ আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে। দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৭৪ হাজার ৮৯৮ জন, মারা গেছেন ২৩ হাজার ৪৭৩ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৫৩ হাজার ৮৩৩ জন।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে রাশিয়াতেও। সেখানে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৫৩ হাজার ৪২৭ জন এবং মারা গেছেন ৩ হাজার ৬৩৩ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ১৮ হাজার ৭৯৮ জন।

যুক্তরাষ্ট্রের পর এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি মানুষ মারা গেছেন যুক্তরাজ্যে। দেশটিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত ৩৬ হাজার ৯৯৬ জন মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ৬২ হাজার ৫৪৭ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ১৬১ জন।

এ ছাড়া, ইউরোপের দেশ স্পেনে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ৩৫ হাজার ৪০০ জন, মারা গেছেন ২৬ হাজার ৮৩৪ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৫০ হাজার ৩৭৬ জন। ইতালিতে আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ৩০ হাজার ১৫৮ জন, মারা গেছেন ৩২ হাজার ৮৭৭ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৪১ হাজার ৯৮১ জন। ফ্রান্সে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৮৩ হাজার ৬৭ জন, মারা গেছেন ২৮ হাজার ৪৬০ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৬৫ হাজার ৩১৭ জন। জার্মানিতে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৮০ হাজার ৬০০ জন, মারা গেছেন ৮ হাজার ৩০৯ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৬১ হাজার ১৯৯ জন।

মধ্যপ্রাচ্যের দেশ ইরানে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৩৭ হাজার ৭২৪ জন, মারা গেছেন ৭ হাজার ৪৫১ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৭ হাজার ৭১৩ জন। তুরস্কে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৫৭ হাজার ৮১৪ জন, মারা গেছেন ৪ হাজার ৩৬৯ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ২০ হাজার ১৫ জন।

প্রতিবেশী দেশ ভারতে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৪৫ হাজার ৪৫৬ জন, মারা গেছেন ৪ হাজার ১৭২ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৬০ হাজার ৭০৬ জন।

ভাইরাসটির সংক্রমণস্থল চীনে আক্রান্ত হয়েছেন ৮৪ হাজার ১০২ জন, মারা গেছেন ৪ হাজার ৬৩৮ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৭৯ হাজার ৩৫২ জন।

উল্লেখ্য, গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর)। প্রতিষ্ঠানটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, দেশে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ৩৫ হাজার ৫৮৫ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। মারা গেছেন ৫০১ জন। এ ছাড়া, সুস্থ হয়েছেন ৭ হাজার ৩৩৪ জন।

Comments

The Daily Star  | English

Wildlife Trafficking: Bangladesh remains a transit hotspot

Patagonian Mara, a somewhat rabbit-like animal, is found in open and semi-open habitats in Argentina, including in large parts of Patagonia. This herbivorous mammal, which also looks like deer, is never known to be found in this part of the subcontinent.

3h ago