পাকাপাকিভাবে নেইমার-এমবাপেরদের সতীর্থ হলেন ইকার্দি

চার বছরের চুক্তিতে পিএসজিকে নিজের নতুন স্থায়ী ঠিকানা বানিয়ে নিলেন তিনি।
mauro icardi
ছবি: এএফপি

ইন্টার মিলান থেকে ধারে যোগ দেওয়া মাউরো ইকার্দির সঙ্গে স্থায়ী চুক্তি করল প্যারিস সেইন্ট জার্মেই (পিএসজি)। ২৭ বছর বয়সী এই আর্জেন্টাইন স্ট্রাইকার পাকাপাকিভাবে নেইমার-কিলিয়ান এমবাপেদের সতীর্থ হয়ে গেলেন।

রবিবার ইকার্দির দলবদল সম্পন্ন হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে ক্লাব দুটি। গেল সেপ্টেম্বরে এক মৌসুমের জন্য ধারে ফরাসি লিগ চ্যাম্পিয়ন পিএসজিতে নাম লেখান তিনি। এবার চার বছরের চুক্তিতে দলটিকে নিজের নতুন স্থায়ী ঠিকানা বানিয়ে নিলেন তিনি।

ইন্টার এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘এফসি ইন্টারন্যাজিওনাল মিলান মাউরো ইকার্দিকে প্যারিস সেইন্ট জার্মেইতে পাঠিয়ে দেওয়ার ঘোষণা দিচ্ছে। ১৯৯৩ সালে জন্ম নেওয়া এই স্ট্রাইকার স্থায়ীভাবে ফরাসি ক্লাবে চলে গেছেন। আমাদের সঙ্গে ছয়টি মৌসুম কাটিয়ে দেওয়া এই খেলোয়াড়কে ক্লাব ধন্যবাদ দিচ্ছে এবং তার ভবিষ্যৎ পেশাদার ক্যারিয়ারের জন্য শুভেচ্ছা জানাচ্ছে।’

ইতালিয়ান গণমাধ্যমের বরাতে ক্রীড়া বিষয়ক ওয়েবসাইট ইএসপিএন জানিয়েছে, ইকার্দির জন্য পিএসজিকে খরচ করতে হচ্ছে প্রায় ৫ কোটি ইউরো। এছাড়া আনুষঙ্গিক খরচ হিসাবে যোগ হতে পারে আরও ৭০ লাখ ইউরো। তবে আর্জেন্টিনার হয়ে আট ম্যাচ খেলা এই ফরোয়ার্ডকে তুলনামূলক কম দামেই দলে টানতে পেরেছে প্যারিসিয়ানরা। কারণ, ধারের চুক্তিপত্রে তার বাই-আউট ক্লজ ৭ কোটি ইউরো রেখেছিল ইতালিয়ান পরাশক্তি ইন্টার।

গেল মার্চে ইউরোপ জুড়ে ফুটবল স্থগিত হয়ে যাওয়ার আগে পিএসজির জার্সিতে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৩১ ম্যাচ খেলে ২০ বার প্রতিপক্ষের জাল কাঁপান ইকার্দি। এর মধ্যে ফরাসি লিগে ২০ ম্যাচে ১২ ও উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ৬ ম্যাচে ৫ গোল করেন তিনি।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাসের কারণে ফরাসি লিগ ওয়ানের ২০১৯-২০ মৌসুম মাঝপথে বন্ধ হয়ে যার। শেষ পর্যন্ত ফ্রান্স সরকারের ঘোষণার পর গেল ৩০ এপ্রিল আসর বাতিলই করে দেয় লিগ কর্তৃপক্ষ। চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হয় নেইমার-এমবাপে-ইকার্দিদের পিএসজিকে। লিগ ওয়ানে এটি তাদের সবমিলিয়ে নবম এবং টানা তৃতীয় শিরোপা।

Comments

The Daily Star  | English

Students bleed as BCL pounces on them

Not just the students of Dhaka University, students of at least four more universities across the country bled yesterday as they came under attack by Chhatra League men during their anti-quota protests.

58m ago