ঘুষের মামলায় বরখাস্ত দুদক পরিচালক বাছিরের জামিন নামঞ্জুর

ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের বরখাস্ত পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছিরের জামিন আবেদন ভার্চুয়াল শুনানিতে নামঞ্জুর করেছেন আদালত।
enamul basir
খন্দকার এনামুল বাসির। ছবি: সংগৃহীত

ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের বরখাস্ত পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছিরের জামিন আবেদন ভার্চুয়াল শুনানিতে নামঞ্জুর করেছেন আদালত।

জামিন চেয়ে বাছিরের আইনজীবী আবেদন করার পর ঢাকার বিশেষ জজ কোর্ট-৪ এর বিচারক শেখ নাজমুল আলম এই আদেশ দেন।

৪০ লাখ টাকার ঘুষ কেলেঙ্কারির অভিযোগে পুলিশের বরখাস্ত উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) মিজানুর রহমান ও দুদকের এনামুল বাছিরের বিরুদ্ধে এই একই আদালত গত ১৮ মার্চ অভিযোগ গঠন করেন। এর আগে ১৭ জানুয়ারি দুদক এই দুই জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দিলে সিনিয়র স্পেশাল জজ কোর্টের বিচারক কে এম ইমরুল কায়েস ৯ ফেব্রুয়ারি অভিযোগপত্র আমলে নেন।

২০১৯ সালের ১৬ জুলাই মিজান ও বাছিরের বিরুদ্ধে মানি লন্ডারিং আইনে দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয় ঢাকা-১-এ মামলাটি করেন দুদকের পরিচালক শেখ মো. ফানাফিল্যা।

একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলের সংবাদ পাঠিকাকে হুমকির অভিযোগে ২০১৮ সালের ৯ জানুয়ারি ডিআইজি মিজানকে প্রত্যাহার করা হয়। সম্পদের তথ্য গোপন ও অবৈধভাবে সম্পদ অর্জনের অভিযোগে তার বিরুদ্ধে মামলা করে দুদক। এর অনুসন্ধান কর্মকর্তা ছিলেন দুদকের পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছির।

মামলার তদন্ত চলাকালে ডিআইজি মিজান একটি টেলিভিশন চ্যানেলে অভিযোগ করেন, অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ থেকে রেহাই দিতে দুদকের পরিচালক এনামুল বাছির তার কাছ থেকে ৪০ লাখ টাকা ঘুষ নিয়েছেন।

তথ্য পাচার ও ঘুষ লেনদেনের অভিযোগ ওঠার পর মিজানকে পুলিশ থেকে এবং বাছিরকে দুদক থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

Comments

The Daily Star  | English

Cow running amok in a shopping mall: It’s not a ‘moo’ point

Animals in Bangladesh are losing their homes because people are taking over their spaces.

1h ago