দর্শকশূন্য মাঠে হলেও আইপিএল আয়োজন করতে চান সৌরভ

বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলি দর্শকশূন্য মাঠে এ বছরের শেষ দিকেই ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক ব্যবসাসফল আসরটি আয়োজনের কথা ভাবছেন।
sourav ganguly
ছবি: এএফপি

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নির্ধারিত সূচিতে আগামী অক্টোবরে মাঠে গড়াবে কি-না তা নিয়ে এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি আইসিসি। তবে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই) ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল) আয়োজনের পরিকল্পনা এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে।

সংস্থাটির সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলি দর্শকশূন্য মাঠে এ বছরের শেষ দিকেই ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক ব্যবসাসফল আসরটি আয়োজনের কথা ভাবছেন।

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী ১৮ অক্টোবর থেকে শুরু হওয়ার কথা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। কিন্তু করোনাভাইরাসের মহামারির মাঝে আদৌ কি অস্ট্রেলিয়াতে বিশ্বকাপ আয়োজন করা যাবে?

আইসিসি এখন পর্যন্ত আশাব্যঞ্জক কোনো খবর দিতে পারেনি। আগামী জুলাইয়ের আগে তারা এ ব্যাপারে কোনো সিদ্ধান্ত দেবে না। এতে আইপিএলের ভবিষ্যৎ হয়ে পড়েছে মেঘাচ্ছন্ন। কারণ, আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, বিশ্বকাপ মাঠে না গড়ালে সেই ফাঁকা সময়টাতে এই জনপ্রিয় প্রতিযোগিতাটি আয়োজন করতে চায় বিসিসিআই।

বুধবার ভারতীয় দৈনিক টাইমস অব ইন্ডিয়া তাদের এক প্রতিবেদনে বলেছে, রাজ্য ক্রিকেট সংস্থাগুলোর কাছে পাঠানো চিঠিতে এ বছরই আইপিএল আয়োজনের ইচ্ছার কথা জানিয়েছেন সৌরভ।

সাবেক তারকা ক্রিকেটার লিখেছেন,  ‘এ বছরই আইপিএল আয়োজন করার জন্য সম্ভাব্য সব রকমের চেষ্টা করে যাচ্ছে বিসিসিআই। দর্শকশূন্য মাঠেও যদি খেলা আয়োজন করতে হয়, তবে সেটাই করা হবে। ক্রিকেটপ্রেমী, ফ্র্যাঞ্চাইজি, খেলোয়াড়, স্পন্সরসহ সংশ্লিষ্ট সবাই চলতি বছরই আইপিএল আয়োজনের সম্ভাবনার দিকে তাকিয়ে রয়েছে।... আমরা আশাবাদী এবং বিসিসিআই শিগগিরই এ বিষয়ে ভবিষ্যৎ পদক্ষেপের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে।’

২০২০ আইপিএল শুরু হওয়ার কথা ছিল গেল ২৯ মার্চ। কিন্তু বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের প্রকোপে অনির্দিষ্টকালের জন্য তা স্থগিত করা হয়েছে।

বিসিসিআই অবশ্য বরাবরই বলে আসছে, চলতি বছরই তারা আইপিএল আয়োজন করতে চায়। কারণ, আসরটি না হলে প্রচুর আর্থিক লোকসানের মুখে পড়তে হবে তাদেরকে।

ভারতের তো বটেই, সম্প্রতি ভারতের বাইরের অনেক ক্রিকেটারও এবারের আসরে খেলার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। তবে বাস্তবতা বলছে, আইপিএল হওয়া-না হওয়া নির্ভর করছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের উপরে। আর শেষ পর্যন্ত দর্শকশূন্য মাঠে অনুষ্ঠিত হলেও প্রতিযোগিতাটি যে উন্মাদনা হারাবে তা আলাদা করে না বললেও চলে।

Comments

The Daily Star  | English