চ্যাম্পিয়ন লিভারপুলকে গুঁড়িয়ে দিলো ম্যান সিটি

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের আগের দুইবারের চ্যাম্পিয়নদের কাছে পাত্তাই পেল না বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।
manchester city
ছবি: রয়টার্স

শিরোপা খোয়ানোর যন্ত্রণার ক্ষতে প্রলেপ দিলো ম্যানচেস্টার সিটি। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের আগের দুইবারের চ্যাম্পিয়নদের কাছে পাত্তাই পেল না বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। ইয়ুর্গেন ক্লপের লিভারপুলের জালে গোল উৎসব করল সিটিজেনরা।

বৃহস্পতিবার রাতে ইতিহাদ স্টেডিয়ামে লিভারপুলকে ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত করেছে ম্যান সিটি। পেপ গার্দিওলার দলের হয়ে একটি করে গোল করেন কেভিন ডে ব্রুইন, রহিম স্টার্লিং ও ফিল ফোডেন। অন্য গোলটি আত্মঘাতী।

ম্যাচে বল দখলের লড়াইয়ে এগিয়ে ছিল লিভারপুল। গোলের সুযোগ তৈরি করার ক্ষেত্রেও তারা খুব একটা পিছিয়ে ছিল না। ম্যান সিটির ১৪টি শটের বিপরীতে তারা নিয়েছে ১১টি শট। এর মধ্যে তিনটি ছিল লক্ষ্যে। কিন্তু স্বাগতিকদের জালে বল পাঠাতে পারেননি মোহামেদ সালাহ-সাদিও মানেরা।

অন্যদিকে, ঘরের মাঠে ম্যান সিটি ছিল আগ্রাসী। কদিন আগে ২০১৯-২০ মৌসুমের শিরোপা জেতা লিভারপুলকে পেয়ে গর্জে ওঠেন ডে ব্রুইন-স্টার্লিং-ফোডেনরা।

ম্যাচের আগে ক্লপের শিষ্যদের ‘গার্ড অব অনার’ দেয় ম্যান সিটি। কিক-অফের পর থেকে আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে জমে ওঠে লড়াই। দুই গোলরক্ষককে দিতে হয়েছে কঠিন পরীক্ষা। তাতে উতরে গেছেন ব্রাজিলিয়ান এদারসন, পারেননি তার স্বদেশি অ্যালিসন।

২১তম মিনিটে মিশরের ফরোয়ার্ড সালাহর শটে অবশ্য পরাস্ত হয়েছিলেন এদারসন। কিন্তু বল পোস্টে লেগে ফিরে আসায় গোল পাওয়া হয়নি লিভারপুলের। চার মিনিট পর উল্টো গোল হজম করে বসে তারা। ইংলিশ উইঙ্গার স্টার্লিংকে ফাউল করে বসেন দলটির সেন্টার ব্যাক জোসেফ গোমেজ। সফল স্পট-কিকে ম্যান সিটিকে এগিয়ে নেন ডে ব্রুইন।

৩৫তম মিনিটে ব্যবধান বাড়ান স্টার্লিং। তরুণ ফোডেনের পাস পেয়ে আগুয়ান দুই ডিফেন্ডার ও অ্যালিসনকে ফাঁকি দিয়ে লক্ষ্যভেদ করেন তিনি। বিরতির ঠিক আগে তৃতীয় গোলের দেখা পায় স্বাগতিকরা। এবার স্কোরশিটে নাম লেখান ২০ বছর বয়সী ইংলিশ মিডফিল্ডার ফোডেন। বেলজিয়ান তারকা ডে ব্রুইনের সঙ্গে বল আদান-প্রদান করে তিনি ঢুকে পড়েন ডি-বক্সে। এরপর নিখুঁত শটে লিভারপুলের জাল কাঁপান।

প্রথমার্ধে ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ পুরোপুরি নিয়ে নেওয়া ম্যান সিটি দ্বিতীয়ার্ধেও খেলেছে একই ছন্দে। পাল্টা আক্রমণে ব্যবধান তারা আরও বাড়িয়ে নেয় ৬৬তম মিনিটে। ডে ব্রুইনের দারুণ পাসে অরক্ষিত স্টার্লিংয়ের শট বদলি নামা অ্যালেক্স অক্সলেড-চেম্বারলেইনের পায়ে লেগে দিক পাল্টে জালে জড়ায়।

সিটির জয়ের ব্যবধান হতে পারত আরও বড়। যোগ করা সময়ের শেষ মিনিটে লক্ষ্যভেদ করেছিলেন রিয়াদ মাহরেজ। কিন্তু আক্রমণের শুরুতে ফোডেনের হাতে বল লাগায় ভিএআর প্রযুক্তির সহায়তা নিয়ে গোলটি বাতিল করেন রেফারি।

চলতি মৌসুমের লিগে লিভারপুলের এটি দ্বিতীয় হার। ৩২ ম্যাচ শেষে বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের অর্জন ৮৬ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ৬৬ পয়েন্ট নিয়ে দুই নম্বরে রয়েছে ম্যান সিটি।

Comments

The Daily Star  | English

5.5 magnitude earthquake jolts Dhaka, Ctg, Sylhet

A magnitude 5.5 earthquake jolted Dhaka, Sylhet, Chattogram and some other parts of the country this evening.

42m ago