শীর্ষ খবর

টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশ পুলিশ হেফাজতে

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান নিহত হওয়ার ঘটনায় দায়ের হওয়া হত্যা মামলার আসামি প্রদীপ কুমার দাশকে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশ (সিএমপি) কমিশনার মাহবুবুর রহমান দ্য ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
oc_pradeep.jpg
প্রদীপ কুমার দাস। ছবি: সংগৃহীত

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান নিহত হওয়ার ঘটনায় দায়ের হওয়া হত্যা মামলার আসামি প্রদীপ কুমার দাশকে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশ (সিএমপি) কমিশনার মাহবুবুর রহমান দ্য ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ‘অসুস্থতাজনিত কারণে তিনি বিভাগীয় পুলিশ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য এসেছিলেন। সেখান থেকে পরবর্তীতে টেকনাফ থানার মামলার এজাহারে তার নাম রয়েছে জানতে পেরে তিনি আত্মসমর্পণের ইচ্ছা পোষণ করেন। আত্মসমর্পণের জন্য তাকে কক্সবাজারে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।’

গতকাল বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে টেকনাফ মডেল থানায় নিয়মিত হত্যা মামলা দায়ের হওয়ার পরে তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হয়। দণ্ডবিধির ৩০২, ২০১ ও ৩৪ জামিন অযোগ্য ধারায় রুজু হওয়া মামলায় মোট নয় জনকে আসামি করা হয়েছে।

এরা হলেন, টেকনাফ থানা থেকে প্রত্যাহার হওয়া ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা প্রদীপ কুমার দাশ (৪৮), বাহারছরা শামলাপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের প্রত্যাহারকৃত পরিদর্শক লিয়াকত আলী (৩১), উপপরিদর্শক নন্দলাল রক্ষিত, কনস্টেবল সাফানুর করিম, কনস্টেবল কামাল হোসেন, কনস্টেবল আবদুল্লাহ আল মামুন, সহাকারী উপপরিদর্শক লিটন মিয়া, উপপরিদর্শক টুটুল ও কনস্টেবল মো. মোস্তফা।

আরও পড়ুন:

ওসি প্রদীপ ও পরিদর্শক লিয়াকত আলীসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

মেজর সিনহার বড় বোনের হত্যা মামলা দায়ের

টেকনাফে পুলিশের গুলিতে ‘সাবেক সেনা কর্মকর্তা’ নিহত

Comments

The Daily Star  | English

Iran's President Raisi, foreign minister killed in helicopter crash

President Raisi, the foreign minister and all the passengers in the helicopter were killed in the crash, senior Iranian official told Reuters

3h ago