ভুয়া তথ্য দিয়ে একাধিক এনআইডি সংগ্রহ

সাবরিনার বিরুদ্ধে মামলা করবে ইসি

ভুয়া তথ্য দিয়ে দুটি জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) সংগ্রহ করায় জেকেজি হেলথ কেয়ারের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলা করতে যাচ্ছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।
জাল কোভিড-১৯ প্রতিবেদন দেওয়ার অভিযোগে ২০ জুলাই জেকেজি হেলথ কেয়ারের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। স্টার ফাইল ছবি

ভুয়া তথ্য দিয়ে দুটি জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) সংগ্রহ করায় জেকেজি হেলথ কেয়ারের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলা করতে যাচ্ছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

আজ বৃহস্পতিবার মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে ইসি সচিব মো. আলমগীর সাংবাদিকদের জানান, এ বিষয়ে তিনি এনআইডি শাখার মহাপরিচালককে নির্দেশনা দিয়েছেন।

ইসি ইতিমধ্যে সাবরিনার একটি এনআইডি ব্লক করেছে।

ইসি সচিব বলেন, ‘সাবরিনার দ্বিতীয় এনআইডি পেতে কারা সাহায্য করেছিল, আমরা ইতিমধ্যে সে বিষয়ে তদন্ত করছি।’

ভোটার তালিকা আইন-২০০৯ অনুযায়ী দুটি এনআইডি রাখা দণ্ডনীয় অপরাধ। এর সর্বনিম্ন শাস্তি দুই বছরের কারাদণ্ড বা জরিমানা অথবা উভয়।

ইসির এনআইডি শাখা জানায়, ২০০৯ সালে সাবরিনা প্রথমবারের মতো ভোটার হন। তখন তিনি তার বর্তমান ও স্থায়ী ঠিকানা মোহাম্মদপুর এবং জন্ম তারিখ ২ ডিসেম্বর, ১৯৭৮ উল্লেখ করেছিলেন।

ওই এনআইডিতে তিনি তার স্বামীর নাম এইচ হক এবং শিক্ষাগত যোগ্যতা স্নাতকোত্তর উল্লেখ করেছিলেন।

কিন্তু, ২০১৬ সালে করা তার দ্বিতীয় এনআইডিতে স্থায়ী ও বর্তমান ঠিকানা বাড্ডা উল্লেখ করেন। সেখানে তিনি জন্ম তারিখ ২ ডিসেম্বর ১৯৮৩ ব্যবহার করেন।

সেখানে তিনি তার মায়ের নাম ও শিক্ষাগত যোগ্যতাও পরিবর্তন করেন।

ইসির এনআইডি শাখার মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ সাইদুল ইসলাম বলেন, ‘দুটি এনআইডি রাখায় এর আগে কাউকে ছাড় দেওয়া হয়নি। এক্ষেত্রেও আমরা কাউকে ছাড় দেব না।’

নকল কোভিড-১৯ সার্টিফিকেট তৈরির মামলায় অভিযুক্ত জেকেজি হেলথ কেয়ারের চেয়ারম্যান ড. সাবরিনা ও তার স্বামী জেকেজির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আরিফুল চৌধুরীর অবৈধ সম্পদ অনুসন্ধান করছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

তদন্ত চলাকালীন দুদক জানতে পেরেছে যে সাবরিনার দুটি এনআইডি।

এরপর, কোনও ব্যক্তি দুটি এনআইডি রাখতে পারেন কিনা তা জানাতে গত ১৯ আগস্ট দুদকের উপপরিচালক সেলিনা আক্তার মনি একটি চিঠিতে ইসিকে অনুরোধ করেন।

Comments

The Daily Star  | English

Hiring begins with bribery

UN independent experts say Bangladeshi workers pay up to 8 times for migration alone due to corruption of Malaysia ministries, Bangladesh mission and syndicates

18m ago