রূপপুর বালিশ দুর্নীতির সেই ঠিকাদার জামিনে মুক্ত

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সাজিন কনস্ট্রাকশন লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহাদত হোসেন জামিনে মুক্ত হয়েছেন। আজ সোমবার সকালে আদালত ও দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সূত্র দ্য ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।
Roopur_Power_Plant.jpg
ছবি: সংগৃহীত

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সাজিন কনস্ট্রাকশন লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহাদত হোসেন জামিনে মুক্ত হয়েছেন। আজ সোমবার সকালে আদালত ও দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সূত্র দ্য ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

শাহাদত হোসেন গত ছয় মাস কারাগারে ছিলেন। গত বৃহস্পতিবার পাবনার একটি আদালত তার জামিন মঞ্জুর করেন। ওই দিনই তিনি কাশিমপুর কারাগার থেকে মুক্তি পান।

সাজিন কনস্ট্রাকশন লিমিটেড রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের আবাসিক ভবনে আসবাবপত্র সরবরাহ করে। মামলায় অভিযোগ আনা হয়, প্রতিষ্ঠানটি প্রকল্পের দুটি ভবনের জন্য কেনা প্রতিটি বালিশের দাম ধরে ৫ হাজার ৯৫৭ টাকা। সেসব বালিশ ভবনে তুলতে খরচ ধরে ৭৬০ টাকা। এ ঘটনায় গত ১৩ ডিসেম্বর দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) চারটি মামলা দায়ের করে। মামলায় ১৩ জনের বিরুদ্ধে ৩১ কোটি ২৪ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ আনা হয়। দুটি মামলায় শাহাদত হোসেনকে আসামি করা হয়।

দুদক পাবনা কার্যালয়ের উপপরিচালক মোয়াজ্জেম হোসেন দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘গত বৃহস্পতিবার পাবনা জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. মকবুল আহসান ওই ঠিকাদারের জামিন মঞ্জুর করে আদেশ দেন। যতদূর জানতে পেরেছি, ওই দিনই তিনি কারাগার থেকে মুক্ত হয়েছেন।’

Comments