বাদলের দাবি ‘অপকৌশল’, বললেন জেতার ব্যাপারে আশাবাদী মানিক

যদি সুষ্ঠু নির্বাচন হয়, তাহলে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী প্রাক্তন এই ফুটবলার।
shafiqul islam manik
শফিকুল ইসলাম মানিক, ছবি: ফিরোজ আহমেদ

নির্বাচনে দাঁড়িয়েও সরে গিয়েছিলেন সভাপতি প্রার্থী বাদল রায়। তবে নির্বাচনের আগের রাতে আবার নিজেকে সমন্বয় পরিষদের সভাপতি প্রার্থী দাবি করে বসেন তিনি। বাদল রায়ের এই অবস্থানকে বিভ্রান্তিমূলক ও অপকৌশল বলছেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) নির্বাচনের আরেক সভাপতি প্রার্থী শফিকুল ইসলাম মানিক। যদি সুষ্ঠু নির্বাচন হয়, তাহলে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী প্রাক্তন এই ফুটবলার।

শনিবার দুপুর ২টার কিছু পর থেকে রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁয়ে চলছে বাফুফের কার্যনির্বাহী পরিষদের নির্বাচন। এতে সভাপতি পদে ফের প্রার্থী হয়েছেন এক যুগ ধরে এই দায়িত্ব পালন করা কাজী সালাউদ্দিন। তার দুই প্রতিদ্বন্দ্বী মানিক ও বাদল।

বাদল প্রার্থী হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে থাকলেও ভোটের মাঠে নেই তিনি। আসেননি ভোট কেন্দ্রেও। নিজেকে সমন্বয় পরিষদের প্রার্থী দাবি করলেও সমন্বয় পরিষদ তা অস্বীকার করেছে। বাদলের এই বিভ্রান্তিমূলক অবস্থানকে নির্বাচনী লড়াইয়ের একটি ‘অপকৌশল’ মনে হয়েছে স্বতন্ত্র প্রার্থী মানিকের।

শেষ পর্যন্ত ভোটের মাঠে থাকা মানিক জানান, সালাউদ্দিনের মতো বড় প্রার্থীকে হারাতে আত্মবিশ্বাসী তিনি, ‘আমি জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী। আমি মনে করি, ভোটাররা আমার উপর আস্থা রাখবে। আর তাদের প্রতিও আমার আস্থা আছে। যদি সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়, তাহলে আমি জিতব। বাকিটা ভোট হলেই বোঝা যাবে।’

তবে কাউন্সিলর বা বর্তমান কমিটির সদস্য না হওয়ায় ভোটের সময় কেন্দ্রের ভেতরে থাকতে না পারায় হতাশাও জানান মানিক, ‘এখানে আইনের একটু ফাঁক আছে। সেই ফাঁকে ভোট গ্রহণের সময় আমি ভেতরে থাকতে পারছি না। এটা একটু অমানবিক বলব আমি।’

কাউন্সিলরদের উপর একটা পরোক্ষ চাপ তৈরি করে মানুষের চাওয়া ভিন্ন দিকে নেওয়া হলে সেটা দুঃখজনক হবে বলে জানান মানিক।

Comments

The Daily Star  | English
Qatar emir’s visit to Bangladesh

Qatari Emir Al Thani arrives in Dhaka on a 2-day visit

Qatari Emir Sheikh Tamim Bin Hamad Al Thani arrived in Dhaka for a two-day visit today afternoon

3h ago