নিরাপত্তা বাহিনী দ্রুততার সঙ্গে তাদের ধরে ফেলেছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

‘এমন যদি হতো আমরা চুপচাপ বসে আছি, আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী চুপচাপ বসে আছে, তারা কিছুই করছে না, বা আমাদের স্থানীয় প্রশাসন তারাও কিছু করছে না তাহলে আপনারা বলতে পারতেন আইনের শাসন নেই।’
সচিবালয়ে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। ছবি: টিভি স্ক্রিন থেকে নেওয়া

‘এমন যদি হতো আমরা চুপচাপ বসে আছি, আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী চুপচাপ বসে আছে, তারা কিছুই করছে না, বা আমাদের স্থানীয় প্রশাসন তারাও কিছু করছে না তাহলে আপনারা বলতে পারতেন আইনের শাসন নেই।’

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে রাতের আঁধারে ঘরে ঢুকে এক নারীকে (৩৭) সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনা নিয়ে আজ মঙ্গলবার সচিবালয়ে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে এ মন্তব্য করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান।

ডিসি, এসপি, ইউএনও সবাই এ বিষয়ে কাজ করছেন বলে জানান তিনি।

নোয়াখালীর ঘটনাটি প্রায় একমাস আগের এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও প্রকাশ পাওয়ার পর তা নিয়ে প্রতিবাদ শুরু হলে প্রশাসন ব্যবস্থা নেওয়া শুরু করে। স্থানীয় প্রশাসন এ ব্যাপারে আগে কেন ব্যবস্থা নেয়নি জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘এ ধরনের ঘটনা ঘটলে সাধারণত ভিকটিম চাপিয়ে যায়, তারা প্রকাশ করতে চায় না। এই জায়গায় সেরকম হয়েছে কিনা আমি জানি না। এটা যখনই আমাদের নলেজে এসেছে, আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী দেখেছে, তখন থেকেই কাজ শুরু করেছে এবং খুব দ্রুততার সঙ্গে তাদের ধরে ফেলেছে।’

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের কথার উদ্ধৃতি দিয়ে ধর্ষকদের সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘মানুষ নয় এরা, অমানুষ হয়ে গিয়েছে।’

এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, ‘দেশের আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী সজাগ আছে বলেই আমরা অপরাধীদের ধরতে পারছি এবং তাদের আইনের আওতায় নিয়ে আসতে পারছি।’

Comments

The Daily Star  | English

Battery-run rickshaw drivers set fire to police box in Kalshi

Battery-run rickshaw drivers set fire to a police box in the Kalshi area this evening following a clash with law enforcers in Mirpur-10 area

1h ago