শীর্ষ খবর

৪ শিশুকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে কারাগারে সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা

লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার টেপাটারী গ্রামে চার শিশুকে যৌন নিপীড়ন ও ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে দায়ের করা মামলার আসামি সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা মোবারক আলীকে (৫০) কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।
arrest logo
প্রতীকী ছবি। স্টার ডিজিটাল গ্রাফিক্স

লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার টেপাটারী গ্রামে চার শিশুকে যৌন নিপীড়ন ও ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে দায়ের করা মামলার আসামি সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা মোবারক আলীকে (৫০) কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে লালমনিরহাট জেলা জজ এবং নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের ভারপ্রাপ্ত বিচারক মো. মিজানুর রহমান এই আদেশ দেন।

অভিযুক্ত ব্যাংক কর্মকর্তা পলাতক থাকার পর জামিনের জন্য আদালতে আত্মসমর্পণ করলে আদালত তাকে কারাগারে পাঠান।

কালীগঞ্জ থানার অফিসার্স ইন-চার্জ (ওসি) আরজু মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন দ্য ডেইলি স্টারকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, ‘অভিযুক্ত আসামি পলাতক থাকায় পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি।’

অভিযুক্ত আসামি মোবারক আলী লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার বাসিন্দা। তিনি অগ্রণী ব্যাংকের লালমনিরহাট শহরের মিশন মোড় শাখার তৎকালীন প্রিন্সিপাল অফিসার ছিলেন। তার বিরুদ্ধে ২০১৯ সালের ৩ ডিসেম্বর কালীগঞ্জ থানায় চার শিশুকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মামলা হয়। এরপর থেকে তিনি পলাতক থাকেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, মোবারক আলী ছুটির দিনে গ্রামের বাড়িতে গিয়ে তার বাড়ির পাশে ফলের বাগানে স্থানীয় শিশুদের নিয়ে আড্ডা দিতেন। তাদের চকলেট ও বিস্কুট দিতেন তিনি। প্রতিবেশীর ৬-৭ বছর বয়সের চার শিশুকে চকলেট ও বিস্কুট দেওয়ার কথা বলে নিজের ঘরে নিয়ে যান। সেখানে ওই শিশুদের সঙ্গে যৌন নিপীড়ন ও ধর্ষণের চেষ্টা করেন। পরে, ভুক্তভোগী শিশুরা তাদের বাবা-মায়ের কাছে এসব জানালে বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হয় ও ছড়িয়ে পড়ে। পরবর্তীতে তাদের হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দিয়ে সুস্থ করা হয়।

Comments

The Daily Star  | English