খেলা

দুরন্ত এমবাপেতে শীর্ষস্থান ধরে রাখল পিএসজি

টানা সপ্তম জয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষস্থান ধরে রাখল টমাস টুখেলের শিষ্যরা।
mbappe
ছবি: টুইটার

প্রথম গোলটির যোগান দিলেন। পেনাল্টি থেকে প্যারিস সেইন্ট জার্মেইয়ের (পিএসজি) দ্বিতীয় গোলটি করলেন কিলিয়ান এমবাপে নিজেই। নঁতের বিপক্ষে দুর্দান্ত নৈপুণ্য দেখিয়ে এই ফরাসি স্ট্রাইকার হলেন ম্যাচসেরা। লিগে টানা সপ্তম জয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষস্থান ধরে রাখল টমাস টুখেলের শিষ্যরা।

শনিবার রাতে ফরাসি লিগ ওয়ানের ম্যাচে নঁতের মাঠে ৩-০ গোলে জিতেছে পিএসজি। আসরের শিরোপাধারীদের সবগুলো গোলই আসে দ্বিতীয়ার্ধে। এমবাপের পাশাপাশি জালের দেখা পান দুই স্প্যানিশ ফুটবলার আন্দার হেরেরা ও পাবলো সারাবিয়া।

চোটের কারণে ছিটকে যাওয়া নেইমারকে ছাড়া খেলতে নেমেও গোটা ম্যাচে আধিপত্য দেখায় পিএসজি। তারা নয়টি সুযোগ তৈরি করে। তাদের নেওয়া ১৩টি শটের চারটি ছিল লক্ষ্যে। বিপরীতে, স্বাগতিকরা বল দখলে বিস্তর ব্যবধানে পিছিয়ে থাকার পাশাপাশি সুযোগ তৈরিতেও সুবিধা করতে পারেনি। তাদের ছয়টি শটের কেবল একটি ছিল লক্ষ্যে।

বিরতির আগে সেরা সুযোগটা অবশ্য পেয়েছিল নঁতে। পিএসজির রক্ষণভাগে ঢুকে ডান প্রান্ত থেকে ছয় গজ বক্সের মধ্যে বল ফেলেছিলেন কোলো মুয়ানি। কিন্তু অবিশ্বাস্যভাবে ফাঁকা জালে লক্ষ্যভেদ করতে পারেননি মোসেস সিমোন। এই মিডফিল্ডারের ডান পায়ের আলতো টোকার পর বল তার নিজের বাঁ পায়েই বাধা পায়!

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই এগিয়ে যায় প্যারিসিয়ানরা। এমবাপের পাসে ডি-বক্সের ভেতর থেকে বাঁ পায়ের শটে জাল খুঁজে নেন হেরেরা। ৬৫তম মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করে দলটি। স্পট-কিক থেকে নঁতের জাল কাঁপান এমবাপে। তিনি ফাউলের শিকার হওয়াতেই পেনাল্টি পেয়েছিল পিএসজি।

চার মিনিট পর ম্যাচে ফেরার সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া করে নঁতে। কাদের বাম্বার পেনাল্টি ফিরিয়ে দেন গোলরক্ষক কেইলর নাভাস। এরপর ৮৮তম মিনিটে অতিথিদের বড় জয় নিশ্চিত করেন সারাবিয়া। দারুণ এক চিপে স্কোরশিটে নাম ওঠান তিনি।

টানা দুই হার দিয়ে লিগ শুরু করা পিএসজির পয়েন্ট নয় ম্যাচে ২১। এক ম্যাচ কম খেলে ১৮ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে আছে লিল। নয় ম্যাচে সমান পয়েন্ট নিয়ে গোল ব্যবধানে পিছিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছে রেনঁ।

Comments

The Daily Star  | English

Mohammadpur Geneva Camp: Narcos clashing over new heroin spot

Mohammadpur Geneva Camp, where narcotics trade is rampant, has been witnessing clashes every day since the day after Eid-ul-Fitr.

12h ago