চুয়াডাঙ্গায় সোনালী ব্যাংকে ফিল্মি স্টাইলে ডাকাতি, ৯ লাখ টাকা লুট

চুয়াডাঙ্গায় সোনালী ব্যাংকের উথলি শাখায় আজ রোববার দিনে দুপুরে অনেকটা ফিল্মি স্টাইলে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে।
chuadanga.jpg
স্টার অনলাইন গ্রাফিক্স

চুয়াডাঙ্গায় সোনালী ব্যাংকের উথলি শাখায় আজ রোববার দিনে দুপুরে অনেকটা ফিল্মি স্টাইলে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। 

এসময় ডাকাত দলের সদস্যরা সশস্ত্র অবস্থায় ব্যাংকের কর্মকর্তাদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে প্রায় ৯ লাখ টাকা লুট করে নির্বিঘ্নে পালিয়ে যায়।

ব্যাংকের প্রহরী আশরাফুল ইসলাম জানান, দুপুর আনুমানিক ১টা ১৫ মিনিটের দিকে মোটরসাইকেলযোগে তিন জন ব্যাংকের ভেতরে প্রবেশ করে। তাদের সবার মুখে মাস্ক ও মাথায় হেলমেট ছিল। ব্যাংকে প্রবেশের দুই মিনিট পরই তারা পিস্তল বের করে ব্যাংকের ম্যানেজারসহ সব কর্মকর্তাদের জিম্মি করে। এরপর ক্যাশে থাকা টাকা লুট করে নিয়ে পালিয়ে যায়।

ব্যাংকের ম্যানেজার আবু বক্কর সিদ্দিক জানান, ব্যাংকে প্রবেশের পরপরই ডাকাত সদস্যরা কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মোবাইল কেড়ে নেয়। এরপর তারা ক্যাশিয়ারের ডেস্কে থাকা ৮ লাখ ৯৪ হাজার টাকা লুট করে পালিয়ে যায়।

এদিকে, ব্যাংক ডাকাতির খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে যান চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার, পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুনিম লিংকন, উপজেলা চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমানসহ প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার জানান, দিনে দুপুরে ব্যাংক ডাকাতির ঘটনা দুঃখজনক। এমন ঘটনা নেতিবাচক বার্তা দেবে। তবে ব্যাংকে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরা (সিসি ক্যামেরা) না থাকায় তিনি অসন্তোষ প্রকাশ করেন।

পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম বলেন, ‘রাষ্ট্রায়ত্ব ব্যাংকের গুরুত্বপূর্ণ একটি শাখায় সিসি ক্যামেরা নেই, এটি কোনোভাবেই মেনে নেওয়া যায় না। এখানে ব্যাংক কর্মকর্তাদেরও অবহেলা রয়েছে।’

তবে খুব দ্রুততম সময়ের মধ্যেই অভিযুক্ত ডাকাত সদস্যদের আইনের আওতায় নিয়ে আসার প্রতিশ্রুতি দেন পুলিশ সুপার।

Comments

The Daily Star  | English

Inadequate Fire Safety Measures: 3 out of 4 city markets risky

Three in four markets and shopping arcades in Dhaka city lack proper fire safety measures, according to a Fire Service and Civil Defence inspection report.

11h ago