করোনাভাইরাস

ভারতে ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত ৩১১১৮, মৃত্যু ৪৮২

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ৩১ হাজার ১১৮ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। এ নিয়ে ভারতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে ৯৪ লাখ ৬২ হাজার ৮০৯ জনে দাঁড়াল। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে দ্বিতীয়তে।
মুম্বাইয়ের একটি রেলস্টেশনে যাত্রীদের শরীরের তাপমাত্রা পরীক্ষা করা হচ্ছে। ২৭ নভেম্বর ২০২০। ছবি: রয়টার্স

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ৩১ হাজার ১১৮ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। এ নিয়ে ভারতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে ৯৪ লাখ ৬২ হাজার ৮০৯ জনে দাঁড়াল। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে দ্বিতীয়তে।

একই সময়ে মারা গেছেন আরও ৪৮২ জন। করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত দেশটিতে মৃত্যুবরণ করেছেন এক লাখ ৩৭ হাজার ৬২১ জন। আর গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৪১ হাজার ৯৮৫ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন ৮৮ লাখ ৮৯ হাজার ৫৮৫ জন। ভারতে মোট শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৩ দশমিক ৯৪ শতাংশ।

আজ মঙ্গলবার ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সবচেয়ে বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছে মহারাষ্ট্রে। এরপর রয়েছে কর্ণাটক, অন্ধ্র প্রদেশ, তামিল নাড়ু, কেরালা, দিল্লি ও উত্তর প্রদেশে। দেশটিতে মোট শনাক্ত ৯৪ লাখ ৬২ হাজার ৮০৯ জনের মধ্যে বর্তমানে আক্রান্ত রয়েছেন চার লাখ ৩৫ হাজার ৬০৩ জন।

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব মেডিকেল রিসার্চের তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে নয় লাখ ৬৯ হাজার ৩২২টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। আর এখন পর্যন্ত পরীক্ষা করা হয়েছে ১৪ কোটি ১৩ লাখ ৪৯ হাজার ২৯৮টি নমুনা।

উল্লেখ্য, গত ৩০ জানুয়ারি ভারতে প্রথম করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির করোনাভাইরাস রিসোর্স সেন্টারের তথ্য অনুযায়ী, সংক্রমণের দিক থেকে বর্তমানে বিশ্বে ভারতের অবস্থান দুই নম্বরে। ভারতের আগে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ও পরে ব্রাজিল।

জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ছয় কোটি ৩২ লাখ ৩৬ হাজার ৮০৪ জন এবং মারা গেছেন ১৪ লাখ ৬৭ হাজার ৯৮৭ জন। আর সুস্থ হয়েছেন চার কোটি পাঁচ লাখ ২৮ হাজার ৮১৬ জন।

Comments

The Daily Star  | English
fire incident in dhaka bailey road

Fire Safety in High-Rise: Owners exploit legal loopholes

Many building owners do not comply with fire safety regulations, taking advantage of conflicting legal definitions of high-rise buildings, according to urban experts.

11h ago