দেশের ১০ জেলায় অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা চালু

অবশেষে দেশের ১০ জেলায় অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা চালু করেছে সরকার। এই ১০টি জেলা হচ্ছে— যশোর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, গাইবান্ধা, জয়পুরহাট, মাদারীপুর, মেহেরপুর, মুন্সিগঞ্জ, পঞ্চগড়, পটুয়াখালী ও সিলেট।
প্রতীকী ছবি | রয়টার্স

অবশেষে দেশের ১০ জেলায় অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা চালু করেছে সরকার। এই ১০টি জেলা হচ্ছে— যশোর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, গাইবান্ধা, জয়পুরহাট, মাদারীপুর, মেহেরপুর, মুন্সিগঞ্জ, পঞ্চগড়, পটুয়াখালী ও সিলেট।

আজ শনিবার এক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক এই কার্যক্রম উদ্বোধন করেন। স্বাস্থ্যসচিব আব্দুল মান্নান ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক এ বি এম খুরশিদ আলমও ভিডিও কনফারেন্সে অংশ নিয়েছেন।

ভিডিও কনফারেন্সে যশোর জেলা হাসপাতালে অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষার মাধ্যমে কার্যক্রমটির উদ্বোধন করা হয়। সেখানে তিন জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করলে দুই জনের করোনা নেগেটিভ আসে এবং অপরজনের পরীক্ষা প্রক্রিয়াধীন ছিল।

অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে দ্রুত সময়ের মধ্যে করোনা শনাক্ত করা যায়। প্রচলিত আরটি-পিসিআর পদ্ধতির বিকল্প হিসেবে এই পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা করা হয়।

করোনা মোকাবিলায় গঠিত জাতীয় কারিগরি কমিটির পরামর্শের পর নানা আমলাতান্ত্রিক জটিলতা পার করে গত ১৭ সেপ্টেম্বর দেশের সরকারি স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রে অ্যান্টিজেন ভিত্তিক র‌্যাপিড পরীক্ষার মাধ্যমে করোনা শনাক্তের অনুমতি দিয়েছে সরকার।

আরটি-পিসিআর পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষার সুবিধা নেই, দেশের এমন ৩৯টি সরকারি হাসপাতাল ও বিশেষায়িত প্রতিষ্ঠানে অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা চালু করার পরিকল্পনা রয়েছে সরকারের। আজ অ্যান্টিজেন পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা চালুর আগ পর্যন্ত দেশে শুধু আরটি-পিসিআর পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা হচ্ছিল। বর্তমানে দেশের ১১৮টি ল্যাবে প্রতিদিন ১৫ হাজারের মতো নমুনা আরটি-পিসিআর পদ্ধতিতে পরীক্ষা করা হচ্ছে।

আরও পড়ুন:

করোনা পরীক্ষায় অ্যান্টিজেন কিটের অনুমোদন

Comments

The Daily Star  | English

44 lives lost to Bailey Road blaze

33 died at DMCH, 10 at the burn institute, and one at Central Police Hospital

8h ago