আন্তর্জাতিক

ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশে অজ্ঞাত রোগে একজনের মৃত্যু, হাসপাতালে ভর্তি ২২৭

ভারতের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর অন্ধ্রপ্রদেশে অজ্ঞাত রোগে আক্রান্ত হয়ে একজন মারা গেছেন এবং কমপক্ষে আরও ২২৭ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।
Andra Pradesh-1.jpg
অজানা রোগে অসুস্থ হয়ে পড়া এক রোগীকে হাসপাতালে নিয়ে যাচ্ছেন স্বজনরা। ছবি: সংগৃহীত

ভারতের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর অন্ধ্রপ্রদেশে অজ্ঞাত রোগে আক্রান্ত হয়ে একজন মারা গেছেন এবং কমপক্ষে আরও ২২৭ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

চিকিৎসকরা জানান, রোগীদের মধ্যে বমি বমি ভাব এবং তারপর অজ্ঞান হয়ে পড়ার লক্ষণ দেখা যাচ্ছে।

বিবিসি বলছে, রহস্যময় এই অসুখের কারণ জানতে তদন্ত শুরু করেছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কায় এলুরু শহরের সরকারি হাসপাতালগুলোতে বিছানা খালি করা হচ্ছে।

করোনাভাইরাস আক্রান্তের হিসেবে ভারত বর্তমানে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সংক্রমিত দেশ। এর মধ্যেই দেশটিতে দেখা দিয়েছে অজানা এই অসুখ।

এলুরু সরকারি হাসপাতালের একজন চিকিৎসক দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানান, অসুস্থদের মধ্যে বিশেষ করে শিশুরা হঠাৎ করেই বমি করা শুরু করে এবং চোখে জ্বালাপোড়া হচ্ছে বলে জানায়। এদের মধ্যে অনেকেই অজ্ঞান হয়ে পরে অথবা তাদের শরীরে খিচুনি দেখা দেয়।

তিনি জানান, ৭০ জন রোগীকে ছেড়ে দেওয়া হলেও ১৫৭ জন এখনো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

অন্ধ্রপ্রদেশে এ পর্যন্ত আট লাখেরও বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। আক্রান্তের হিসেবে এটি ভারতের তৃতীয় সর্বোচ্চ সংক্রমিত রাজ্য। তবে রহস্যময় এ রোগের সঙ্গে করোনার কোনো সম্পর্ক পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন অন্ধ্রপ্রদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী আলা কালী কৃষ্ণ শ্রীনিবাস।

তিনি জানান, সপ্তাহ জুড়ে হাসপাতালে ভর্তি হতে থাকা রোগীদের রক্ত পরীক্ষায় করোনা সংক্রমণ ধরা পড়েনি।

অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী জগনমোহন রেড্ডি জানান, অজানা এই রোগের কারণ জানতে স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের একটি বিশেষ দলকে এলুরু পাঠানো হয়েছে।

তিনি নিজেও ওই শহরটি পরিদর্শনে যাবেন বলে জানিয়েছেন।

Comments

The Daily Star  | English

All animal waste cleared in Dhaka south in 10 hrs: DSCC

Dhaka South City Corporation (DSCC) has claimed that 100 percent sacrificial animal waste has been disposed of within approximately 10 hours

3h ago