সৌদি আরবও ফাইজারের ভ্যাকসিন অনুমোদন দিলো

মধ্যপ্রাচ্যের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে বাহরাইনের পর ফাইজার ও বায়োএনটেকের তৈরি করোনা ভ্যাকসিন অনুমোদন দিয়েছে সৌদি আরব। এর আগে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায়ও ফাইজারের ভ্যাকসিন অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।
প্রতীকী ছবি | রয়টার্স

মধ্যপ্রাচ্যের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে বাহরাইনের পর ফাইজার ও বায়োএনটেকের তৈরি করোনা ভ্যাকসিন অনুমোদন দিয়েছে সৌদি আরব। এর আগে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায়ও ফাইজারের ভ্যাকসিন অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

সৌদি সংবাদমাধ্যম আরব নিউজ জানায়, গতকাল বৃহস্পতিবার জরুরি ব্যবহারের জন্য ফাইজার-বায়োএনটেকে ভ্যাকসিনকে অনুমোদন দিয়েছে সৌদি আরবের খাদ্য ও ওষুধ প্রশাসন (এসএফডিএ)।

জানা গেছে, গত ২৪ নভেম্বর মার্কিন ফার্মাসিউটিক্যাল জায়ান্ট ফাইজার ও জার্মান সংস্থা বায়োএনটেকের পক্ষ থেকে জমা দেওয়া তথ্য-উপাত্ত পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ভ্যাকসিনটি কার্যকারিতা, সুরক্ষা, স্থিতিশীলতা ও উত্পাদন নীতির দিক আন্তর্জাতিক ওষুধের মান অনুযায়ী সব শর্ত পূরণ করে বলে জানিয়েছে এসএফডিএ।

কবে থেকে সৌদির সাধারণ নাগরিককে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে, তা এখনো জানা যায়নি। এসএফডিএ জানায়, সাধারণ নাগরিকের জন্য বিতরণ শুরুর আগে কারা ভ্যাকসিন নিতে পারবেন, সেটি ঠিক করতে কয়েকটি পরীক্ষা করা হবে।

এর আগে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ডা. মোহাম্মদ আল-আবদ আল অলি জানান, যথাযথ মূল্যায়ন ছাড়া কোনো ভ্যাকসিন অনুমোদন দেওয়া হবে না। এক্ষেত্রে সৌদির জনগণের স্বাস্থ্য ও সুরক্ষাকেই মন্ত্রণালয় সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দেবে।

সৌদি সরকারের অনুমোদন প্রসঙ্গে বায়োএনটেকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা উগুর সাহিন বলেন, ‘প্রথম থেকেই আমাদের লক্ষ্য এমন একটি ভ্যাকসিন তৈরি করা যা কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে দ্রুত ও শক্তিশালী সুরক্ষা তৈরি করতে পারে এবং যেটি সব বয়সীরা গ্রহণ করতে পারে। এখন পর্যন্ত পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে, আমরা বিশ্বাস করি, আমরা সফলভাবে এটি অর্জন করেছি। ভাইরাসের কোনো দেশ কিংবা সীমানা নেই। তাই আমরা যত দ্রুত সম্ভব বিশ্বব্যাপী অনেক মানুষের কাছে এই ভ্যাকসিন পৌঁছে দিতে কাজ করছি।’

ভ্যাকসিনের অনুমোদন নিয়ে বিশ্বজুড়ে বেশ কয়েকটি দেশের নিয়ন্ত্রক ও জনস্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বায়োএনটেকের আলোচনা চলছে বলে জানান তিনি।

জনস হপকিনস বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য অনুযায়ী, এ পর্যন্ত সৌদি আরবে করোনায় আক্রান্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩ লাখ ৫৯ হাজারের বেশি। করোনায় মারা গেছেন ৬ হাজার ১২ জন।

আরও পড়ুন:

কানাডাতেও অনুমোদন পেল ফাইজারের করোনা ভ্যাকসিন

হ্যাকাররা ইউরোপ থেকে ভ্যাকসিন ডেটা চুরি করেছে: ফাইজার

৯৫ শতাংশ কার্যকারিতা নিয়ে ফাইজারের করোনা ভ্যাকসিনের ট্রায়াল শেষ

অ্যালার্জি থাকলে ফাইজারের ভ্যাকসিন নয়: এমএইচআরএ

যুক্তরাজ্যে প্রথম করোনার ভ্যাকসিন পেলেন ৯০ বছরের নারী

বাহরাইনও ফাইজারের ভ্যাকসিনের অনুমোদন দিলো

কানাডাতেও অনুমোদন পেল ফাইজারের করোনা ভ্যাকসিন

Comments

The Daily Star  | English

Eid rush: People suffer as highways clog up

Thousands of Eid holidaymakers left Dhaka yesterday, with many suffering on roads due traffic congestions on three major highways and at an exit point of the capital in the morning.

50m ago