মোটরসাইকেল ভাড়ার টাকা চাওয়ায় সুবর্ণচরে কিশোরকে পিটিয়ে হত্যা, আটক ২

মোটরসাইকেলের ভাড়ার পাওনা টাকা চাওয়ায় নোয়াখালীর সুবর্ণচরে এক কিশোরকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনা ঘটছে।
স্টার অনলাইন গ্রাফিক্স

মোটরসাইকেলের ভাড়ার পাওনা টাকা চাওয়ায় নোয়াখালীর সুবর্ণচরে এক কিশোরকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনা ঘটছে।

রোববার দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের চর আলা উদ্দিন গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত কিশোর মো. নিজাম উদ্দিন (১৫) ওই গ্রামের বেলাল উদ্দিনের ছেলে। সে পেশায় একজন নির্মাণ শ্রমিক। ভাড়ায় মোটরসাইকেল চালাত তার ভাই আকবর হোসেন।

হত্যায় জড়িত থাকার অভিযোগে হুমায়ুন কবির ও শাহীন নামের দুই যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শনিবার সকালে সুবর্ণচরের চরআলা উদ্দিন গ্রামের আকবর হোসেনের কাছ থেকে একটি মোটরসাইকেল ভাড়া নেয় একই এলাকার সাইফুল ইসলাম। বিকেলে মোটরসাইকেলটি গ্যারেজে ফিরিয়ে দিয়ে গেলেও ভাড়ার টাকা পরিশোধ করেনি সাইফুল। আজ সকালে আকবরের ছোট ভাই নিজাম উদ্দিনের সঙ্গে স্থানীয় আলা উদ্দিন বাজারে সাইফুলের দেখা হলে তার কাছে ভাড়ার টাকা চায় নিজাম। সাইফুল টাকা না দেওয়ায় দুজনের মধ্যে বাগবিতণ্ডা হয়। উপস্থিত লোকজন তাদের নিরস্ত করে। ওই ঘটনার জের ধরে আলা উদ্দিন বাজারের পাশে একটি নির্মাণাধীন কালভার্টের কাছে  নিজাম কাজ করার সময় তার ওপর হামলা চালায় সাইফুল ও তার লোকজন।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে চরজব্বার থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. ইব্রাহিম খলিল জানান, আলা উদ্দিন বাজার থেকে ফিরে নিজাম বাজারের পাশের একটি কালভার্টে কাজ করছিল। এসময় বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সাইফুলের নেতৃত্বে ৭-৮ জন নিজামের ওপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে পিটিয়ে জখম করে। নিজাম মাটিতে লুটিয়ে পড়লে হামলাকারীরা পালিয়ে যান। একটি বেসরকারি ক্লিনিকে নিয়ে যাওয়ার পর দুপুর ১২টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করে কত্যর্বরত চিকিৎসক। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

চরজব্বার থানার ওসি জিয়াউল হক বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে নিজামকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। অভিযান চালিয়ে হুমায়ুন ও শাহীন নামের দুই যুবককে আটক করা হয়েছে। তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। এ ঘটনায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। নিহত পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পাওয়ার পর তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments