আনন্দধারা

জন্মদিনে শাবনূরের কবিতা

জন্মদিনে শাবনূর কবিতা লিখে তার ফেসবুকে প্রকাশ করেছেন। কবিতাটি হলো—
Shahnur
অভিনেত্রী শাবনূর। ছবি: সংগৃহীত

জন্মদিনে শাবনূর কবিতা লিখে তার ফেসবুকে প্রকাশ করেছেন। কবিতাটি হলো—

‘জীবনের রং বড় বিচিত্র,

কখনো লাল কখনো নীল।

কখনো মুক্ত পাখির মতো।

কখনো আবার চুপসে যাওয়া ফুলের মতো।

হারিয়ে যায় কত চেনা মুখ।

থেকে যায় শুধু অনাবিল সুখ।’

ঢাকাই চলিচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাবনূরের জন্মদিন আজ (১৭ ডিসেম্বর)। বেশ অনেক বছর ধরে অভিনয় থেকে দূরে  আছেন তিনি। তারপরও তার জনপ্রিয়তায় ভাটা পড়েনি।

২০১১ সাল থেকে নিয়মিত অস্ট্রেলিয়ায় থাকেন শাবনূর। মাঝেমধ্যে ঢাকায় আসেন। স্বামীর সঙ্গে ছাড়াছাড়ি হয়েছে চলতি বছরেই। বর্তমানে তার একমাত্র সন্তান আইজান নিহানকে নিয়েই সব ব্যস্ততা।

১৯৭৯ সালের ১৭ ডিসেম্বর যশোরে জন্মগ্রহণ করেন শাবনূর। তার পর্দার পেছনের নাম নূপুর। স্বনামধন্য পরিচালক প্রয়াত এহতেশামের ‘চাঁদনী রাতে’ অভিনয়ের মাধ্যমে তিনি প্রথম চলচ্চিত্র আসেন। ১৯৯৩ সালের ১৫ অক্টোবর ছবিটি মুক্তি পায়।

১৯৯৪ সালে জহিরুল হক পরিচালিত ‘তুমি আমার’ ছবিটি দিয়ে অভিনয়ে নিয়মিত হয়েছিলেন এই অভিনেত্রী।

সালমান শাহের সঙ্গে জুটি হয়ে ১৪টি ছবিতে অভিনয় করেছেন শাবনূর। দর্শকরা দারুণভাবে গ্রহণ করেছিল এই জুটির ছবিগুলো।

১৯৯৪ সালে পরিচালক শাহ আলম কিরণের ‘রঙিন সুজন সখী’-তে অভিনয়ের পর ১৯৯৫ সালে ‘স্বপ্নের ঠিকানা’, ১৯৯৬ সালে ‘স্বপ্নের পৃথিবী’ ও ‘তোমাকে চাই’, ১৯৯৭ সালে ‘আনন্দ অশ্রু’-তে অভিনয় করে তারকা খ্যাতি পান তিনি।

পরে রিয়াজের সঙ্গে জুটি হয়ে ‘মন মানে না’ ও ‘তুমি শুধু তুমি’, ‘ভালোবাসি তোমাকে’ ও ‘বিয়ের ফুল’-এ অভিনয় করেন তিনি। এই ছবিগুলো দর্শকপ্রিয়তা পায়।

সালমান শাহ ও রিয়াজ ছাড়াও ওমর সানী, ফেরদৌস, অমিত হাসান, আমিন খান ও বাপ্পারাজের সঙ্গে অভিনয় করেও সফলতা পান শাবনূর।

শাবনূর ২০০৫ সালে ‘দুই নয়নের আলো’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করার জন্য পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।

কয়েকদিন আগে ফেসবুকে তিনি লিখেছিলেন, ‘মন বড়োই বিচিত্র, মনের ধর্ম হলো কখনো এটি একইরকম থাকে না। দুঃখ কষ্ট ভালোলাগা ভালোবাসা সমস্ত ইমোশন নিয়েই মনের কারবার।’

Comments

The Daily Star  | English

Int’l bodies fail to deliver when needed: PM

Though there are many international bodies, they often fail to deliver in the time of crisis, said Prime Minister Sheikh Hasina

58m ago