চীনের ভ্যাকসিন নিরাপদ ও কার্যকর দাবি

ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল ও জরুরি ব্যবহারে চীনের তৈরি করোনা ভ্যাকসিনগুলো নিরাপদ ও কার্যকর প্রমাণিত হয়েছে বলে দাবি করেছেন দেশটির বিশেষজ্ঞ ঝেং ঝংওয়ি।
Zheng Zhongwei-1.jpg
চীনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশনের (এনএইচসি) কর্মকর্তা এবং ভ্যাকসিন উৎপাদন সংক্রান্ত ন্যাশনাল ওয়ার্কিং গ্রুপের প্রধান ঝেং ঝংওয়ি। ছবি: সংগৃহীত

ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল ও জরুরি ব্যবহারে চীনের তৈরি করোনা ভ্যাকসিনগুলো নিরাপদ ও কার্যকর প্রমাণিত হয়েছে বলে দাবি করেছেন দেশটির বিশেষজ্ঞ ঝেং ঝংওয়ি।

আজ সোমবার চীনের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা শিনহুয়া এ তথ্য জানিয়েছে।

দেশটির জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশনের (এনএইচসি) কর্মকর্তা এবং ভ্যাকসিন উৎপাদন সংক্রান্ত ন্যাশনাল ওয়ার্কিং গ্রুপের প্রধান ঝেং ঝংওয়ি বলেন, ‘এখন পর্যন্ত জরুরি প্রয়োজনে চীনে প্রায় ১০ লাখ লোককে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে।’

ভ্যাকসিন গ্রহণকারীকে জানিয়ে এবং প্রাসঙ্গিক আইন-বিধি মেনেই এসব ভ্যাকসিন দেওয়া হয় বলে জানান তিনি।

ঝেং ঝংওয়ি বলেন, ‘এ ক্ষেত্রে কয়েকটি স্বল্প আকারের বিরূপ প্রতিক্রিয়া পাওয়া গেলেও, গুরুতর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার খবর এখন পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।’

চীনা ভ্যাকসিন নেওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে ৬০ হাজারেরও বেশি লোক অন্যান্য দেশসহ উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় ভ্রমণ করেছেন এবং এতেও গুরুতর সংক্রমণের কোনো খবর পাওয়া যায়নি বলে জানান তিনি।

গত আগস্ট মাসে চীনে তৃতীয় ধাপের ট্রায়ালে উত্তীর্ণের অপেক্ষায় থাকা সিনোভ্যাক বায়োটেকের তৈরি করোনা ভ্যাকসিন জরুরি প্রয়োজনে ব্যবহারের অনুমতি দেওয়া হয়।

এ ছাড়া, চীনা ন্যাশনাল ফার্মাসিউটিক্যাল গ্রুপ (সিনোফার্ম) ও চীনা ন্যাশনাল বায়োটেক গ্রুপের (সিএনবিজি) দুটি ভ্যাকসিনের পরীক্ষামূলক ডোজ দেওয়া হয়েছে হাজারো মানুষকে।

Comments