মহামারি ফুটবল বদলে দিয়েছে: মেসি

পিচিচি ট্রফি আগের দিন হাতে পেয়েছেন সময়ের অন্যতম সেরা এ তারকা। আর পুরস্কার হাতে তুলে নেওয়া দিনে মাদ্রিদ ভিত্তিক সংবাদমাধ্যম মার্কাকে বিশেষ সাক্ষাৎকার দিয়েছেন মেসি। তার উল্লেখযোগ্য অংশ তুলে ধরা হলো পাঠকদের জন্য
ছবি: টুইটার

গত মৌসুমটা ভালো যায়নি ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনার। তবে ব্যক্তিগতভাবে নিজেদের পারফরম্যান্সের ধারাবাহিকতা ঠিকই দেখিয়েছেন অধিনায়ক লিওনেল মেসি। জিতে নিয়েছেন লা লিগার সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার পিচিচি ট্রফি। আর সেই পুরস্কারটি আগের দিন হাতে পেয়েছেন সময়ের অন্যতম সেরা এ তারকা। আর পুরস্কার হাতে তুলে নেওয়া দিনে মাদ্রিদ ভিত্তিক সংবাদমাধ্যম মার্কাকে বিশেষ সাক্ষাৎকার দিয়েছেন মেসি। তার উল্লেখযোগ্য অংশ তুলে ধরা হলো পাঠকদের জন্য-

টানা সাতটি পিচিচি জয় কি দারুণ কিছু নয়?

-সত্যি বলতে কি আমি কখনোই ভাবিনি যে আমি এতোগুলো (পিচিচি) জিতব এবং (তেলমো) জারাকে ছাড়িয়ে যাব। এটা খুবই আনন্দদায়ক অনুভূতি।

যখন আপনি পিচিচি ট্রফি জিতলেন মুহূর্তে আপনার অনেক কম গোল। আপনি কি অষ্টম পুরস্কার পাওয়ার কথা চিন্তা করছেন? 

আমি জানি না। আমি এ ব্যাপারে ভাবছিও না। এটা আমাকে চিন্তায় ফেলে না। আমি এরচেয়ে লা লিগা শিরোপা জিততে চাই। পিচিচির চেয়ে গত মৌসুমে আমরা যা জিততে পারিনি তা জিততে চাই। আমরা এর জন্য লড়াই করব।

এই মৌসুমে, আমরা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ লা লিগায় বার্সেলোনার মধ্যে একটি বড় পার্থক্য দেখেছি। আপনার কি মনে হয় দল দুটি প্রতিযোগিতা জিততে পারে?

-আমরা সবসময় সবকিছু জেতার চেষ্টা করি। যেমনটি এই ক্লাবের ক্ষেত্রে সর্বদা হয়। আমরা অল্প অল্প করে উন্নতি করছি। এটি সত্যি যে লা লিগায় ফিরতে কিছুটা সময় লেগেছে। আমাদের এত পয়েন্ট হারানো উচিত হয়নি।

আমি মনে করি আলাভেস ও গেতাফের বিপক্ষে এবং ক্যাম্প ন্যুতে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে আমরা আরও বেশি প্রাপ্য ছিলাম। এই তিনটি ম্যাচে আমরা অনেক গোল করার সম্ভাবনা তৈরি করেছিলাম এবং আমরা যদি তা গোলে রূপান্তরিত করতে পারতাম তাহলে পরিস্থিতি অন্যরকম থাকতো।

লা লিগায় সঠিক পথে ফিরে আসার কোনো সূত্র আছে কি?

-এখন গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে টেবিলের উপরে উঠতে কয়েকটি ম্যাচে ভালো ফলাফলের ধারাবাহিকতা রাখতে হবে। এর জন্য সময় লাগবে এবং মহামারীর এ সময়ে ম্যাচগুলো খুব কঠিন। সত্যটি হলো ফুটবল অনেক পরিবর্তন হয়েছে এবং এটা সবার জন্য কঠিন। তবে ধাপে ধাপে জিনিসগুলি স্থির হয়ে উঠবে।

নয় মাস কেটে গেছে মহামারীতে খালি স্টেডিয়ামে খেলা হচ্ছে। ভক্তদের ছাড়া খেলা কি আপনার পক্ষে কঠিন?

-হ্যাঁ, অনেক। ভক্তদের ছাড়া খেলাটা ভয়ঙ্কর। এটি ভালো অনুভূতি নয়। স্টেডিয়ামে কাউকে না দেখে খেলা অনেকটা অনুশীলনের মতো। এবং শুরুতে ম্যাচে আসতে অনেক বেশি সময় লাগে। এজন্য আমরা এমন ম্যাচ দেখি। এ কারণে যার বিপক্ষেই খেলেন না কেন জয়ী হওয়া খুব কঠিন।

মহামারীটি ফুটবলকে অনেক পরিবর্তন করেছে এবং খুব খারাপ করেছে। আমরা এটি ম্যাচে দেখে আসছি। আশা করি এত কিছুর পরেও আমরা সমর্থকদের স্টেডিয়ামগুলিতে ফের দেখতে পাব এবং স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে আসতে পারব।

আপনি সম্প্রতি একটি বিশেষ গোল করেছেন যা পরে আপনি দিয়েগো ম্যারাডোনাকে উৎসর্গ করেছিলেন।

-এটি একটি খুব বিশেষ দিন ছিল এবং আমি সামান্য শ্রদ্ধা জানাতে সক্ষম হয়েছি। আমি তার জার্সিটি দেখাতে সক্ষম হয়েছি। দিয়েগো যে আমাদের মাঝে নেই এটা বোঝাতে এমন দিনে সেটা অসাধারণ এক স্মৃতি।

Comments

The Daily Star  | English

The cost-of-living crisis prolongs for wage workers

The cost-of-living crisis in Bangladesh appears to have caused more trouble for daily workers as their wage growth has been lower than the inflation rate for more than two years.

19m ago