আইসোলেশনে জিদান

আগের দিনও করোনাভাইরাস পরীক্ষায় নেগেটিভ এসেছেন রিয়াল মাদ্রিদ কোচ জিনেদিন জিদান। তবে এর মধ্যে বেশ কয়েক জন যারা করোনাভাইরাস পজিটিভ এসেছেন তাদের সঙ্গে মেশার কারণে স্বেচ্ছায় নিজেকে আইসোলেশনে রেখেছেন এ ফরাসি কোচ।
zinedine zidane
রিয়াল কোচ জিনেদিন জিদান। ছবি: এএফপি

আগের দিনও করোনাভাইরাস পরীক্ষায় নেগেটিভ এসেছেন রিয়াল মাদ্রিদ কোচ জিনেদিন জিদান। তবে এর মধ্যে বেশ কয়েক জন যারা করোনাভাইরাস পজিটিভ এসেছেন তাদের সঙ্গে মেশার কারণে স্বেচ্ছায় নিজেকে আইসোলেশনে রেখেছেন এ ফরাসি কোচ।

গতকাল বৃহস্পতিবার ভালবেবাসে দলের অনুশীলনে যোগ দেননি জিদান। তবে পিসিআর ও এন্টিজেন টেস্ট করিয়েছিলেন জিদান। সেখানে ফলাফল নেগেটিভ এসেছে। তারপরও বাড়তি সতর্কতার জন্য নিজেকে আইসোলেশনে রেখেছেন তিনি।

মূলত স্প্যানিশ সরকার ও লা লিগার প্রোটোকল অনুযায়ী, বাধ্য হয়েই জিদানকে আইসোলেশনে যেতে হয়েছে। নিয়ম অনুযায়ী, যদি কোনো পজিটিভ ব্যক্তির খুব কাছাকাছি গিয়ে থাকেন তাহলে অবশ্যই তাকে দুই সপ্তাহের জন্য আইসোলেশনে যেতে হবে। তবে পিসিআর টেস্টে নেগেটিভ আসলে সময় ১৪ দিন থেকে কমিয়ে ১০ দিন করা হয়। অর্থাৎ ১০ দিন আইসোলেশনে থাকতে হচ্ছে এ কোচকে।

আর এ কারণে শুরু শনিবার ওসাসুনার বিপক্ষের ম্যাচ মিস করছেন জিদান। পাশাপাশি অ্যাথলেতিক বিলবাওর বিপক্ষে সুপারকোপার সেমি-ফাইনালেও পাওয়া যাচ্ছে না তাকে। এরমধ্যে যদি পজিটিভ না হন তাহলে সুপারকোপার সেমি-ফাইনালে জিতলে ফাইনালে দেখা যাবে এ ফরাসিকে। তবে রিয়াল কর্তৃপক্ষ চেষ্টা চালাচ্ছে ওসাসুনার বিপক্ষেই ডাগআউটে জিদানকে পেতে। ধারণা করা হচ্ছে সবুজ সংকেত পেতেও পারেন তিনি।

উল্লেখ্য, মৌসুমে শুরুটা ভালো না হলেও দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়িয়েছে জিদানের দল রিয়াল মাদ্রিদ। এরমধ্যেই শীর্ষে থাকা অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদকে ছুঁয়ে ফেলেছে তারা। যদিও তাদের চেয়ে দুটি ম্যাচ বেশি খেলেছে দলটি। ছন্দ ধরে রাখার মিশনে মূল কোচকে পরবর্তী ম্যাচে না পাওয়া কিছুটা দুশ্চিন্তা দলটির জন্য।

Comments